kalerkantho

শুক্রবার । ২৪ মে ২০১৯। ১০ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৬। ১৮ রমজান ১৪৪০

মাঝনদীতে বিবাহপূর্ব ফটোশুট, বর-কনের হাবুডুবু ভাইরাল (ভিডিও)

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১৯ এপ্রিল, ২০১৯ ১৬:৩০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



মাঝনদীতে বিবাহপূর্ব ফটোশুট, বর-কনের হাবুডুবু ভাইরাল (ভিডিও)

বিয়ের শুরুতেই ডুবল নৌকা, হাবুডুবু খেলেন যুগল। একটু আলাদা কিছু করবেন বলে ঠিক করেছিলেন ভারতের কেরালার এই জুটি। এমন কিছু যা কি না লোকজনের মনে থেকে যাবে। মনে থাকার মতোই কাণ্ড হলো বটে! হাসির খোরাক হয়ে গেলেন দুজনই। 

সব সাজানো গোছানো ছিল। মাঝনদীতে রাখা থাকবে নৌকা। তাতে বসবেন দুজনে। মাথার ওপর কলা পাতা উঁচিয়ে ধরবেন একসঙ্গে। ভাবটা এমন থাকবে, যেন তা দিয়ে বৃষ্টির ছাঁট আড়াল করার চেষ্টা করছেন তারা। আর সেই কলা পাতার ছাউনির আবহে চলবে রোমান্স। চারপাশ থেকে গায়ে পানি ছিটিয়ে দেবে লোকজন। পুরো পরিস্থিতিটাই তৈরি ছিল। কিন্তু বাধ সাধল ওই নৌকা। 

প্রেমে হাবুডুবু খেয়েছেন তো প্রায় সবাই! কিন্তু বিয়ের ঠিক আগে এমন হাবুডুবু খেয়েছেন ক'জন? কেরালার তিজিন ও শিল্পা সত্যিকার অর্থেই পানিতে হাবুডুবু খেলেন। প্রেমের জোয়ার তোলপাড় তুলল ঝিলের পানিতে। সেই পানির তোরে খেই হারাল নৌকা। ভেসে গেলেন হবু বর-কনে। 

বিবাহপূর্ব ফটোশুটে একটা মনের মতো ছবি পেতে হবু বর-বউ কত কী না করেন! আর তাদের সেই মনে মতো ছবি তুলে দিতে কখনো ফটোগ্রাফার বাড়াবাড়ি করে ফেলেন। পম্বা নদীর মাঝে রাখা ছিল নৌকা। তিজিন ও শিল্পা তার মাঝে বসে কলা পাতা মাথায় ধরে চার চোখ এক করেছিলেন। রোমান্স যখন সপ্তম সুরে তখনই কাত হতে শুরু করে নৌকা। একে অপরে মজে থাকা তিজিন ও শিল্পা তখন এমনিতেই ভারসাম্য হারিয়েছেন। হুঁশ ফিরল নদীর পানিতে পড়ে। 

যদিও তিজিন-শিল্পার বিবাহপূর্ব ফটোশুট আয়োজক সংস্থাটি জানিয়েছে, তারা ইচ্ছে করেই যুগলকে নদীতে ফেলেছিল। আর সেটা আগে থেকে জানানো হয়নি তাদের। কারণ, তারা দেখাতে চেয়েছিল যে একে অন্যের প্রেমে ভারসাম্য হারিয়েছেন যুগল। তিজিন-শিল্পার এই ভিডিও ভাইরাল হয়েছে। ইতোমধ্যে দু' লাখ মানুষ দেখে ফেলেছেন সেই ভিডিও। অনেকেই ফটোশুট করা সংস্থাটির এই প্ল্যানটির প্রশংসা করেছেন।

 

সূত্র: জি নিউজ  

 

মন্তব্য