kalerkantho

মঙ্গলবার । ২২ অক্টোবর ২০১৯। ৬ কাতির্ক ১৪২৬। ২২ সফর ১৪৪১            

গোপন ব্যাপারে সঙ্গীর সঙ্গে আলাপের কৌশল

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১৯ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯ ২০:৪৯ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



গোপন ব্যাপারে সঙ্গীর সঙ্গে আলাপের কৌশল

প্রথমবার সঙ্গীর সঙ্গে যৌনতা কিংবা কনডম নিয়ে আলোচনার ব্যাপারে কমবেশি দ্বিধায় থাকেন বেশিরভাগ মানুষ। বিশেষ করে ১৬ থেকে ২৪ বছর বয়সের মধ্যে কেউ সঙ্গীর সঙ্গে প্রথমবার যৌন সম্পর্কে লিপ্ত হওয়ার ক্ষেত্রে এক ধরনের মানসিক বিড়ম্বনায় পড়েন।

গবেষণায় উঠে এসেছে, এ বয়সে যৌন সম্পর্কে লিপ্ত হওয়ার ক্ষেত্রে অনেকেই কনডম ব্যবহার করে না। কিন্তু কেন?

গবেষকরা বলছেন, কেবল লজ্জার কারণে কনডম নিয়ে আলোচনা থেকে অনেকে বিরত থাকে এবং কনডম কেনা থেকেও বিরত থাকে। অথচ নিরাপদ যৌন সম্পর্কের ক্ষেত্রে কনডম অতি প্রয়োজনীয়।

অনেক তরুণ মন্তব্য করেছেন, তারা মনে করেন কনডম ব্যবহারের ফলে যৌন সম্পর্কে সে রকম কোনো সুখানুভূতি থাকে না। সে কারণে তারা কনডম ব্যবহার থেকে বিরত থাকে।

নারীরাও বলছেন, তাদের পুরুষ সঙ্গীরা কনডম ব্যবহারে অনীহা দেখায়। তারা মনে করে এতে করে সঙ্গী আর তার মধ্যে দূরত্ব তৈরি হয়। অথচ কনডম সে ধরনের প্রতিবন্ধকতা তৈরি করে না।

গবেষণার নমুনায় অংশ নেয়া তরুণদের কেউ কেউ জানিয়েছেন, সঙ্গীর সঙ্গে যৌন সম্পর্কে লিপ্ত হওয়ার ক্ষেত্রে কনডম ব্যবহার করলেই সমস্যা। সে ক্ষেত্রে সঙ্গী জিজ্ঞেস করতে পারে, তুমি কনডমের ব্যবহার যানো? যদি উত্তর হ্যাঁ হয় তাহলে বিপদ। যদি উত্তর না হয়, সে ক্ষেত্রে সঙ্গী আবার মাথামোটা ভাবতে পারে। সে কারণে অনেকেই কনডম ব্যবহার করে না।

কেউ আবার বলছেন, যৌনতার ব্যাপারে আগে থেকেই আলোচনা করলে সঙ্গী বিষয়টি নেতিবাচকভাবে নিতে পারে। অপরজন হয়তো ভাবতে পারে, সে কতই না খারাপ! যে কারণে এসব ব্যাপারে কথা বলতে পারছে। এসব ভেবে অনেকেই চুপ থাকে।

গবেষকরা বলছেন, যৌনতার ব্যাপারে সঙ্গীর সঙ্গে খোলাখুলিভাবে আলাপ সেরে নিতে হবে। এসব নিয়ে লুকোচুরির কিছু নেই। তাকে বোঝাতে হবে আমরা শিক্ষিত হিসেবে সচেতন থাকা জরুরি। সে ক্ষেত্রে করণীয় সম্পর্কে আলোচনা করতে হবে। নিরাপদ যৌনতার ব্যাপারে কনডম ব্যবহারে সঙ্গীকেউ শুরু থেকেই বোঝাতে হবে।

তারা আরো বলছেন, পারিবারিকভাবে যৌনতার ব্যাপারে রাখঢাকের কারণে অনেকেই এসব শব্দ শুনলেও চমকে ওঠে। তাদেরও সচেতন হতে হবে।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা