kalerkantho

বুধবার । ২৪ সেপ্টেম্বর ২০২২ । ১৩ আশ্বিন ১৪২৯ ।  ১ রবিউল আউয়াল ১৪৪৪

দাওয়াই

ক্রনিক প্যানক্রিয়াটাইটিস : দীর্ঘমেয়াদি তীব্র পেট ব্যথা

৮ আগস্ট, ২০২২ ১০:০১ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



ক্রনিক প্যানক্রিয়াটাইটিস : দীর্ঘমেয়াদি তীব্র পেট ব্যথা

পৃথিবীতে যত কঠিন ও কষ্টদায়ক ব্যথা রয়েছে সেগুলোর মধ্যে এটি অন্যতম। এই ধরনের রোগী সাধারণত তীব্র ও অসহনীয় পেট ব্যথায় ভুগে থাকে। যেকোনো ধরনের খাবার বা পানীয় পান করলে ব্যথা আরো বেশি বেড়ে যায়। এ কারণে তারা সঠিকভাবে খেতেও পারে না।

বিজ্ঞাপন

ক্রনিক প্যানক্রিয়াটাইটিসের চিকিৎসাপদ্ধতি

এই ধরনের রোগে আক্রান্ত ব্যক্তিদের ক্ষেত্রে যুগান্তকারী কিছু পদ্ধতির প্রচলন শুরু করেছে মডার্ন পেইন মেডিসিন, যেগুলো খুবই কার্যকর এবং ব্যথা নিরাময়ের ক্ষেত্রে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে।

ইন্টারভেনশন পদ্ধতির চিকিৎসা

ক্রনিক প্যানক্রিয়াটাইটিসের ব্যথা নিরাময়ে ইন্টারভেনশন পদ্ধতির চিকিৎসা কার্যকর এবং রোগী সঙ্গে সঙ্গে ব্যথামুক্ত হতে পারে। তবে এই ব্যথামুক্ত অবস্থা কত দিন স্থায়ী হবে, সে বিষয়টি রোগীভেদে আলাদা হতে পারে। কোনো কোনো রোগী এক থেকে তিন বছরও ভালো থাকতে পারে। কারো কারো ক্ষেত্রে ছয় মাস বা তিন মাস পর্যন্ত স্থায়ী হতে পারে। এ ধরনের পদ্ধতি অনেক সময় বারবার প্রয়োগের প্রয়োজন হতে পারে। যেকোনো পদ্ধতিতে এই ইন্টারভেনশন চিকিৎসা প্রয়োগ করার আগে রোগী এবং তাদের স্বজনদের সঙ্গে সরাসরি এ বিষয়ে আলোচনা হওয়া খুবই জরুরি। দুটি পদ্ধতিতে ইন্টারভেনশন চিকিৎসা করা হয়ে থাকে। একটি হচ্ছে রোগীকে এক্স-রের মাধ্যমে দেখে সুনির্দিষ্ট জায়গায় ইনজেকশন প্রয়োগ করা হয়।

আরো একটি পদ্ধতি রয়েছে, যেটা আলট্রাসনোগ্রামের সাহায্যে করা হয়। আলট্রাসনোগ্রামের সাহায্যে দেখে দেখে সুনির্দিষ্ট জায়গায় ইনজেকশন প্রয়োগ করা হয়। এ দুটি পদ্ধতির মধ্যে আলট্রাসনোগ্রামের সাহায্যে পদ্ধতিটি মানসম্পন্ন এবং অধিক গ্রহণযোগ্য। তবে ইনজেকশন দেওয়ার ক্ষেত্রে যিনি ইনজেকশন প্রয়োগ করবেন তাঁকে অবশ্যই এ বিষয়ে যথেষ্ট পারদর্শী ও প্রশিক্ষিত হতে হবে।

সুনির্দিষ্টভাবে রোগ নির্ণয় হলে ইন্টারভেনশন চিকিৎসা রোগীকে ব্যথামুক্ত পদ্ধতিতে জীবন যাপন করতে দারুণভাবে সাহায্য করতে পারে।

পরামর্শ দিয়েছেন
ডা. মো. আহাদ হোসেন
ব্যথা বিশেষজ্ঞ ও চিফ কনসালট্যান্ট
বাংলাদেশ সেন্টার ফর রিহ্যাবিলিটেশন, ঢাকা



সাতদিনের সেরা