kalerkantho

শুক্রবার । ২ আশ্বিন ১৪২৮। ১৭ সেপ্টেম্বর ২০২১। ৯ সফর ১৪৪৩

ওজন কমানোর ভুল ধারণা নিয়ে যা বললেন রুজুতা দিবাকর

অনলাইন ডেস্ক   

২৪ আগস্ট, ২০২১ ১৩:৫০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



ওজন কমানোর ভুল ধারণা নিয়ে যা বললেন রুজুতা দিবাকর

করোনাকালে বাড়িতে থেকে অনেকেই মুটিয়ে গিয়েছেন। আর দীর্ঘদিন লকডাউনে জিম বন্ধ থাকায় এ সমস্যা আরো প্রকট হয়েছে। অনেকে সময়েরে অভাবে ব্যায়ামও করতে পারছেন না। আবার বিভিন্ন কারণে ডায়েটও করা হচ্ছে না। ডায়েট বা ব্যায়াম ছাড়াও যে ওজন কমানো সম্ভব সে সম্পর্কে বলেছেন কারিনা কাপুর খান ও আলিয়া ভাটের ডায়েটিশিয়ান ও নিজস্ব পুষ্টিবিদ রুজুতা দিবাকর। ওজন কমানো নিয়ে অনেকগুলো ভুল ধারণা তুলে ধরেছেন তিনি।

ফিটনেস - শরীরের ওজন ফিটনেস নির্দেশ করে না
রুজুতা একটি ইনস্টাগ্রাম ভিডিওতে শরীরের ওজন সম্পর্কে কিছু গুরুত্বপূর্ণ তথ্য শেয়ার করেছেন। রুজুতা বলেছেন যে একজন ব্যক্তির শরীরের ওজনের ওপর তার ফিটনেস নির্ভর করে না । বয়স এবং সময়ের সঙ্গে ব্যক্তির শরীরের ওজন ওঠানামা করে।

শরীরের ওজন পেশি, হাড় এবং পানি দিয়ে গঠিত
রজুতার মতে, আপনি যদি আপনার শরীরের গঠনে কোনো পরিবর্তন দেখতে না পান, তাহলে হতাশ হওয়ার দরকার নেই। কারণ প্রত্যেকের শরীরের গঠনে পরিবর্তন তার শরীরের ওজনের ওপর নির্ভর করে না। বডির ওয়েট আপনার পেশির ওজন, শরীরের চর্বি, হাড় এবং পানির উপাদান দ্বারা গঠিত। সুতরাং আপনি পরিমাপের স্কেলে যা দেখছেন, তা আপনার ফিটনেস স্তর বা মোটা হওয়ার স্তরের চিত্র নয়।

বয়সের সঙ্গে ওজন পরিবর্তন হয়
শরীরের ওজন ওঠানামা করা সম্পূর্ণ স্বাভাবিক। এই ওঠানামা আপনার শরীরে পানির পরিমাণ এবং রাত থেকে আপনি যে পরিমাণ তরল গ্রহণ করেছেন তার ওপর নির্ভর করে।  পরিবর্তনকে প্রভাবিতকারী অন্য বিষয়গুলোর মধ্যে রয়েছে ঘাম, শ্বাস-প্রশ্বাস, প্রস্রাব, খাওয়ার সময় এবং অন্ত্রের চলাচল। তাই সকালে আপনার শরীরের ওজন রাতের তুলনায় কিছুটা কম হবে।

আপনি যেকোনো ওজনেই ফিট এবং সুস্থ থাকতে পারেন
পুষ্টিবিদদের মতে, শরীরের ওজন-নির্বিশেষে ফিট এবং সুস্থ থাকতে পারেন। মনে রাখার বিষয় হলো- আপনার সামগ্রিক স্বাস্থ্য ফিট থাকা উচিত। শরীর ঠিক রাখার জন্য আপনার শারীরিক ক্রিয়াকলাপের ওপর জোর দেওয়া উচিত। সুষম খাদ্যের সঙ্গে দৈনিক ব্যায়াম শরীরকে ফিট ও সুস্থ রাখতে সহায়তা করে। তবে বেশি সমস্যা বোধ করলে চিকিৎসকের পরামর্শ নিতে হবে।



সাতদিনের সেরা