kalerkantho

মঙ্গলবার । ১০ ডিসেম্বর ২০১৯। ২৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৬। ১২ রবিউস সানি     

জেনে নিন কাটা স্থানের প্রাথমিক চিকিৎসা

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

৭ মে, ২০১৯ ২১:৪০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



জেনে নিন কাটা স্থানের প্রাথমিক চিকিৎসা

ধারালো অস্ত্রের আঘাতে যেকোন সময় কেটে যেতে পারে শরীরের বিভিন্ন অঙ্গ। আর বাড়িতে বাচ্চারা থাকলে তো কোনো কথা নেই। প্রায় প্রতিদিনই কোথাও না কোথাও আঘাত পেতে পারে সে। রান্না করার সময়ও হাত কেটে যেতে পারে। আর এই কাটাছড়ায় উপযুক্ত প্রাথমিক চিকিৎসা করা প্রয়োজন। তাই অতি সহজে জেনে নিন কীভাবে ঘরে বসেই নিতে পারেন প্রাথমিক চিকিৎসা।

ছুরি-কাঁচি বা অন্য কোনো ধরনের ধারালো অস্ত্রে লেগে যদি কেটে যায় বা পড়ে গিয়েও যদি রক্তপাত হয়, তবে সব চেয়ে আগে ক্ষতস্থান ভালো করে ধুয়ে ফেলতে হবে যাতে কোনো রকম ইনফেকশন না হয়। কেটে গেলে ঠান্ডা অথবা ঈষদুষ্ণ পানি দিয়ে ক্ষতস্থান ধুয়ে ফেলুন। কাটা অংশটা পরিষ্কার করতে কোনো মৃদু সাবান বা ক্লিনজার ব্যবহার করুন। ক্ষতস্থান থেকে প্রথমেই ধুলো-ময়লা ধুয়ে ফেলতে হবে, না হলে ইনফেকশন হয়ে যেতে পারে। এরপর চেষ্টা করুন রক্ত পড়া বন্ধ করতে। পরিষ্কার কাপড় দিয়ে ক্ষতস্থানে এক থেকে দুই মিনিট চেপে ধরে রাখলে রক্তপাত বন্ধ হয়ে যাবে। 

এরপর কোনো অ্যান্টিসেপটিক ক্রিম ক্ষতস্থানে লাগিয়ে রাখুন। পেট্রোলিয়াম জেলি ব্যবহার করলে ক্ষত দ্রুত সেরে যেতে পারে। ক্ষতস্থান পেট্রোলিয়াম জেলি লাগিয়ে রাখলে ভবিষ্যতে দাগ পড়া থেকেও রেহাই পাওয়া যায়। তারপর একটা পরিষ্কার ব্যান্ডেজ জড়িয়ে রেখে দেবেন। এর ফলে বাইরের ধুলোবালির হাত থেকে ক্ষতস্থান সুরক্ষিত থাকবে। 

ক্ষতস্থান লাল হয়ে গেলে বা চুলকালে সেটা ইনফেকশনের লক্ষণ হতে পারে। কোনো রকম সমস্যা দেখা দিলে অবশ্যই ডাক্তারের পরামর্শ নেবেন। নোংরা বা জং ধরা কিছুতে কাটলে অবশ্যই টিটেনাস নেবেন। আপনি নিজে নিশ্চিত না থাকলে ডাক্তারের পরামর্শ নিয়ে নেবেন। তবে ক্ষতস্থান গভীর হলে বাড়িতে চিকিত্‍সা না করে দ্রুত চিকিৎসকের কাছে যেতে হবে।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা