kalerkantho

শনিবার । ২৩ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭ । ৬ জুন ২০২০। ১৩ শাওয়াল ১৪৪১

ই-কমার্স দিবসের আলোচনায় বাণিজ্যমন্ত্রী

ঘরে থাকুন, পণ্য পৌঁছে দেবে ই-কমার্স

নিজস্ব প্রতিবেদক   

৭ এপ্রিল, ২০২০ ২০:৫১ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



ঘরে থাকুন, পণ্য পৌঁছে দেবে ই-কমার্স

দেশের মানুষকে ঘরে থাকার আহবান জানিয়ে বাণিজ্যমন্ত্রী টিপু মুনশি বলেছেন, দেশের জরুরী পরিস্থিতি ই-কমার্স লেনদেন তুলনামূলক নিরাপদ। তাই ঘরে থাকুন, ই-কমার্স কম্পানিগুলো আপনার ঘরে জরুরী খাদ্যপণ্য পৌঁছে দেবে। করোনার এই সময়ে ই-কমার্স বিস্তৃত হয়ে সাধারণ মানুষের পর্যায়ে সেবা দিচ্ছে এটা একটা বড় সহযোগিতা। সরকার এবং বানিজ্য মন্ত্রণালয়ের পক্ষ থেকে সব ধরনের সহযোগিতা দিয়ে আমরা এই সেবাদাতাদের পাশে থাকব।

আজ মঙ্গলবার ই-কমার্স দিবসের ডিজিটাল আলোচনা সভায় এসব কথা বলেন বাণিজ্যমন্ত্রী। ই-কমার্স অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ (ই-ক্যাবের) উদ্যোগে অনলাইন আলোচনায় আরো অংশ নেন ডাক ও টেলিযোগাযোগ মন্ত্রী মোস্তাফা জব্বার, তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি বিভাগের সচিব এন এম জিয়াউল আলম, বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের ডাব্লিইটিও সেলের পরিচালক হাফিজুর রহমান, ডাক বিভাগের মহাপরিচালক সুধাংশু শেখর ভদ্র, এটুআই-এর পলিসি অ্যাডভাইজার আনির চৌধুরী ও একশপের টিম লিডার রেজওয়ানুল হক জামি।

এবারের ই-কমার্স দিবসের প্রতিপাদ্য ‘মানবসেবায় ই-কমার্সের ডাক’। এই স্লোগানকে সামনে রেখে সেবা দিয়ে যাবে ই-কমার্স প্রতিষ্ঠানগুলো। ই-ক্যাবের পক্ষ থেকে উদ্ভোধন করা হয় একটি মানবিক সেবামূলক পদক্ষেপ মানবসেবা ডট কম।

মোস্তাফা জব্বার বলেন, বর্তমান সময়ে যখন সবকিছু বন্ধ হয়েছে তখন ই-কমার্স এবং ইন্টারনেট সেবা দেশের লাইফ লাইনে পরিণত হয়েছে।

জিয়াউল হক বলেন, ই-কমার্স থাকার কারণে এই সময়ে ঘরে বসে ক্রেতারা তাদের নিত্য প্রয়োজনীয় সেবা পাচ্ছে। ভবিষ্যতে এই সেবা আরো ব্যাপক হারে বাড়বে।

বাংলাদেশ ডাক বিভাগের মহাপরিচালক সুধাংশু শেখর ভদ্র বলেন, এই সময়ে প্রচুর চাহিদা বেড়েছে তবুও ই-ক্যাবের মাধ্যমে ডাক বিভাগ ই-কমার্স উদ্যোক্তাদের পাশে থাকবে তাদের নিত্য প্রয়োজনীয় সেবা দেয়ার জন্য।

ডব্লিওটিও সেলের পরিচালক হাফিজুর রহমান বলেন, আজকের এই বিপদের দিনে আমরা যে ই-কমার্সের সেবা পাচ্ছি সেজন্য অনেক লম্বা একটা যাত্রা পার হয়ে আসতে হয়েছে।

ই-ক্যাবের সভাপতি শমী কায়সার বলেন, এই দূর্যোগপূর্ণ সময়ে ই-ক্যাবের সদস্যদের নিয়ে জনগনের পাশে রয়েছে ই-ক্যাব। ই-ক্যাবের পক্ষ থেকে আমরা এই সময়ে ব্যবসাকে প্রাধান্য না দিয়ে মানুষের সেবাকে প্রাধান্য দিয়েছি।

ই-ক্যাবের সাধারণ সম্পাদক মোহাম্মদ আব্দুল ওয়াহেদ তমাল বলেন, এই জরুরি পরিস্থিতিতে ই-ক্যাব মানুষের পাশে দাঁড়িয়েছে। ই-ক্যাবের পক্ষ থেকে মানবসেবা নামে একটি প্লাটফরর্ম তৈরী করা হয়েছে।


অনুষ্ঠানের মাধ্যমে ই-ক্যবের সামাজিক সহযোগিতা প্লাটফরম মানবসেবা ডট কম উদ্ধোধন করা হয়। সভাপতির বক্তব্যে সাবেক সচিক ও ই-ক্যাবের উপদেষ্ঠা নজরুল ইসলাম খান বলেন, করোনা পরিস্থিতিতে ই-কমার্সের যে ব্যপ্তি ঘটেছে তা ধরে রাখার জন্য প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া উচিত।

বাক্যোর সভাপতি ওয়াহিদুর রহমান শরীফ, ই-ক্যাবের পরিচালনা পরিষদের সদস্যদের মধ্যে মোহাম্মদ আব্দুল হক অনু, আশীষ চক্রবর্তী, সাহাব উদ্দীন শিপন, নাসিমা আকতার নিশা, সাইদ রহমান ও আসিফ আহনাফ, আলোচনায় অংশ নেন।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা