kalerkantho

মঙ্গলবার । ২২ অক্টোবর ২০১৯। ৬ কাতির্ক ১৪২৬। ২২ সফর ১৪৪১            

ফেসবুকে ইভেন্ট : মাদরাসাছাত্রী রাফির জন্য চিৎকার

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

৮ এপ্রিল, ২০১৯ ১৫:৫৪ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



ফেসবুকে ইভেন্ট : মাদরাসাছাত্রী রাফির জন্য চিৎকার

পুড়িয়ে হত্যাচেষ্টায় দগ্ধ ফেনীর সোনাগাজীর মাদরাসাছাত্রী নুসরাত জাহান রাফির অবস্থা সংকটাপন্ন। তাকে ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে লাইফ সাপোর্টে নেওয়া হয়েছে। এদিকে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকে তাকে নিয়ে 'নুসরাত জাহান রাফির জন্য চিৎকার' শিরোনামে একটি ইভেন্ট খোলা হয়েছে। 

ইভেন্টটিতে জানানো হয়, গজ-ব্যান্ডেজে মোড়া ১৭/১৮ বছরের প্রাণবন্ত মেয়েটি এখন মৃত্যুর মুখোমুখি। সোনাগাজী ইসলামিয়া মাদ্রাসাসহ সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে নিরাপদ পরিবেশ নিশ্চিতের দাবিতে কণ্ঠ উচ্চকিত করুন। 

ধর্মীয় শিক্ষার পরিবেশকে পুঁজি করে পরিচালিত ধারাবাহিক যৌন নিপীড়নের বিরুদ্ধে এবং অধ্যক্ষ সিরাজুদ্দৌলার যৌন নিপীড়ন ও নুসরাত জাহান রাফি'র শরীরে অগ্নিসংযোগের অপরাধে অভিযুক্ত সিরাজুদ্দৌলাসহ অপরাপর আসামিদের দ্রুত বিচারের দাবিতে সোমবার (৮ এপ্রিল) বিকাল ৫টায় শাহবাগে আমরা চিৎকার করবো। 

ইভেন্টে আরো জানানো হয়, বছরের পর বছর ধরে শিক্ষক নামধারী একজন কাঠমোল্লা মেয়েদের যৌন হয়রানি করে চলেছেন, কিন্তু কোনো প্রতিকার নেই। নুসরাত জাহান রাফি যখন সেখানে শিরদাঁড়া সোজা করে প্রতিরোধের জন্য প্রতিবাদী হয়েছে, ঠিক তখনি রাফিকে থামিয়ে দিতে তৎপর হয়ে ওঠে সোনাগাজী ইসলামিয়া মাদ্রাসার অধ্যক্ষ সিরাজুদ্দৌলা ও তার অনুসারিরা। তারা একদিকে রাফির বিরুদ্ধে সরব অবস্থান নিয়ে অধ্যক্ষকে বাঁচাতে মাঠে নেমেছেন, অপরদিকে একদল অমানুষ অধ্যক্ষের বিরুদ্ধে দায়েরকৃত মামলাটি তুলে নিতে রাফিকে চাপ দিতে থাকে। রাফি মামলা তুলে না নেওয়ায় কৌশলে তারা ছাদে ডেকে নিয়ে নিজেদেরকে বোরকার ভেতরে লুকিয়ে রাফির শরীরে আগুন ধরিয়ে দেয়!

ইভেন্টের লিংক : https://www.facebook.com/events/595631134275980/

ইতোমধ্যে আগুন ধরিয়ে দেওয়ার ঘটনায় কারান্তরীণ অধ্যক্ষকে মাদ্রাসা থেকে সামায়িকভাবে বরখাস্ত করা হয়েছে এবং রবিবার থেকে ১৬ এপ্রিল পর্যন্ত মাদ্রাসা বন্ধ ঘোষণা করা হয়েছে। আজ সোমবার সোনাগাজী ফাজিল (ডিগ্রি) মাদ্রাসা কেন্দ্রে থেকে পরীক্ষা শেষে অগ্নিদগ্ধ নুসরাত জাহান রাফির ওপর হামলা কারীদের বিচার চেয়েছে পরীক্ষার্থীরা।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা