kalerkantho

মঙ্গলবার । ২৫ জুন ২০১৯। ১১ আষাঢ় ১৪২৬। ২২ শাওয়াল ১৪৪০

শিল্পমন্ত্রী বললেন

‘ম্যানেজ’ করে মানহীন পণ্য বাজারে ছাড়ার সময় শেষ

নিজস্ব প্রতিবেদক   

২১ মে, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



‘ম্যানেজ’ করে নিম্নমানের পণ্য বাজারজাত করার সময় শেষ হয়ে গেছে বলে মন্তব্য করেছেন শিল্পমন্ত্রী নূরুল মজিদ মাহমুদ হুমায়ূন। গতকাল সোমবার বিশ্ব মেট্রোলজি দিবস-২০১৯ উপলক্ষে বাংলাদেশ স্ট্যান্ডার্ডস অ্যান্ড টেস্টিং ইনস্টিটিউশন (বিএসটিআই) আয়োজিত এক সেমিনারে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ মন্তব্য করেন। বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন শিল্প প্রতিমন্ত্রী কামাল আহমেদ মজুমদার। শিল্পসচিব মো. আব্দুল হালিমের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য দেন বিএসটিআইয়ের মহাপরিচালক মো. মুয়াজ্জেম হোসাইন।

শিল্পমন্ত্রী বলেন, ‘আমার মন্ত্রণালয়ের অধীন প্রতিষ্ঠানগুলোর মধ্যে বিএসটিআইয়ের ভূমিকা সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ। এরই মধ্যে তাদের কর্মকাণ্ড সবার বিবেককে নাড়া দিয়েছে। সাধারণ মানুষ যেসব বিষয়ে অনেকেই জানত না। যারা নিম্নমানের সামগ্রী বিক্রি করত বিভিন্ন পর্যায়ে। তারা কিন্তু আজকে নড়েচড়ে বসতে বাধ্য হচ্ছে। একটা সময় ছিল ম্যানেজ করার। এই ম্যানেজ করার সময়টা আমার মনে হয় চলে গেছে। আর ম্যানেজ করে নিম্নমানের পণ্য বাজারজাতের কোনো সুযোগ দেওয়া যাবে না।’

সম্প্রতি বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের ৫২টি পণ্য বিএসটিআইয়ের পরীক্ষায় নিম্নমানের প্রতীয়মান হয়েছে। এক রুলের পরিপ্রেক্ষিতে হাইকোর্ট পণ্যগুলো বাজার থেকে তুলে নেওয়ার নির্দেশ প্রদান করে। এই ঘটনায় বিএসটিআইয়ের প্রতি সাধারণ মানুষের শ্রদ্ধা ও গ্রহণযোগ্যতা বেড়ে যাচ্ছে বলেও জানান তিনি। এটা ধরে রাখার তাগিদ দিয়ে শিল্পমন্ত্রী বলেন, ‘এই বিশ্ব মেট্রোলজি দিবসে অনেক বেশি সচেতনতামূলক কার্যক্রম পরিচালনা করা উচিত।’ এ সময় সারা দেশে মানসম্মত টেস্টিং ল্যাব করে দেওয়ার প্রতিশ্রুতিও প্রদান করেন তিনি। যেগুলো দিয়ে প্রত্যেকটি জেলা, উপজেলায় দ্রুত কাজ শুরু হয়ে যাবে বলে জানান।

কামাল আহমেদ মজুমদার বলেন, ‘ওজন পরিমাপে মান নিয়ন্ত্রণের জন্য রুদ্ধদ্বার সেমিনার দিয়ে ভোক্তার অধিকার নিশ্চিত করা যাবে না। এর জন্য দরকার ব্যাপক প্রচারণা। আবার বিএসটিআই একাই কাজ করলে হবে না, ব্যবসায়ীরা সৎ না হলে, সততার সঙ্গে ব্যবসা না করলে কোনো কিছুই কাজে আসবে না। কেউই ওজন পরিমাপ ঠিক করে দিতে পারবে না।’

শিল্পসচিব তাঁর বক্তব্যে বলেন, ‘আমরা এমন পর্যায়ে যেতে চাই যেখানে বিশ্বাসযোগ্য একটা ভাবমূর্তি গড়ে উঠবে। পণ্যের লেবেলে যা থাকার কথা তাই থাকবে। মানুষ নির্দ্বিধায় এটাকে বিশ্বাস করবে।’

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা