kalerkantho

বুধবার। ১৯ জুন ২০১৯। ৫ আষাঢ় ১৪২৬। ১৫ শাওয়াল ১৪৪০

উদ্যোক্তা ও পরিচালকের শেয়ার আটকা থাকবে সিডিবিএলে

নিজস্ব প্রতিবেদক   

১৫ মে, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



উদ্যোক্তা ও পরিচালকের শেয়ার আটকা থাকবে সিডিবিএলে

পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত কম্পানির উদ্যোক্তা, পরিচালক ও প্লেসমেন্ট শেয়ারধারীদের নিয়ন্ত্রণে কড়াকড়ি আরোপের সিদ্ধান্ত নিয়েছে নিয়ন্ত্রক সংস্থা বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশন (বিএসইসি)। এ জন্য ইলেকট্রনিক শেয়ার সংরক্ষণকারী প্রতিষ্ঠান সেন্ট্রাল ডিপজিটরি বাংলাদেশ লিমিটেডের (সিডিবিএল) ব্লক মডিউল অনুমোদন করেছে সংস্থাটি।

গতকাল মঙ্গলবার কমিশনের নিয়মিত সভায় এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে বলে কমিশনের নির্বাহী পরিচালক ও মুখপাত্র সাইফুর রহমান স্বাক্ষরিত এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে জানা গেছে। ব্লক মডিউলে সংরক্ষিত শেয়ার চাইলেই উদ্যোক্তারা বিক্রি করতে পারবেন না।

বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়, পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত সব কম্পানির উদ্যোক্তা, পরিচালক, প্লেসমেন্ট শেয়ারহোল্ডারদের এবং মিউচুয়াল ফান্ডের উদ্যোক্তাদের ইউনিট সিডিবিএলের ব্লক মডিউল ব্যবহার করে ব্লক করে রাখবে। যাতে ব্লক করা শেয়ার ও ইউনিট বিও অ্যাকাউন্ট থেকে স্থানান্তর করা না যায়। শেয়ার ও ইউনিটহোল্ডাররা স্টক এক্সচেঞ্জে প্রয়োজনীয় ঘোষণা ও প্রযোজ্য ক্ষেত্রে কর প্রদানের পর স্টক এক্সচেঞ্জ ওই শেয়ারের ব্লক প্রত্যাহার করতে পারবে। ব্লক প্রত্যাহার হওয়ার শেয়ার বা মিউচুয়াল ফান্ডের ইউনিট লেনদেন করা যাবে।

বিজ্ঞপ্তিতে আরো জানানো হয়, ব্লক মডিউল যাতে সহজেই ব্যবহার করা যায়, সে জন্য প্রস্তুতি হিসেবে কমিশনের নির্দেশে সিডিবিএল এরই মধ্যে তালিকাভুক্ত কম্পানি, অ্যাসেট ম্যানেজমেন্ট কম্পানি ও স্টক এক্সচেঞ্জের সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তাদের প্রশিক্ষণ দিয়েছে। বিএসইসি আরো জানায়, সিডিবিএল ও স্টক এক্সচেঞ্জদ্বয়ের প্রধান প্রযুক্তি কর্মকর্তা এই মডিউল ব্যবহারসংক্রান্ত বিষয়ে সার্বক্ষণিক পর্যবেক্ষণ করবেন। এসংক্রান্ত নির্দেশনা শিগগির জারি করা হবে।

তিনটি আইন অনুমোদন : শর্ট সেল ও ইনভেস্টমেন্ট সুকুক ও ডেরিভেটিভস আইনের চূড়ান্ত অনুমোদন দিয়েছে কমিশন। এর আগে খসড়া আইন প্রকাশের পর সংশ্লিষ্টদের মতামত নেওয়া হয়। বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, শর্ট সেল, ইনভেস্টমেন্ট সুকুক ও ডেরিভেটিভস আইনের ওপর জনমত জরিপে প্রাপ্ত মতামত পর্যালোচনা করে সংশোধন, পরিবর্তন ও পরিমার্জন করে কমিশন আইন অনুমোদন দেওয়া হয়েছে, যা শিগগিরই গেজেট আকারে প্রকাশ করা হবে।

২০ কোটি টাকার বন্ড অনুমোদন : ‘পেনিনসুলা ব্যালেন্স ফান্ড’ নামের একটি বেমেয়াদি মিউচুয়াল ফান্ড অনুমোদন দিয়েছে কমিশন। কমিশনের এক বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়, মিউচুয়াল ফান্ডটির প্রাথমিক লক্ষ্যমাত্রা ২০ কোটি টাকা। ফান্ডটির উদ্যোক্তা দুই কোটি টাকা দেবে আর বাকি ১৮ কোটি টাকা বিনিয়োগকারীর জন্য বরাদ্দ থাকবে। বিনিয়োগকারীদের জন্য বরাদ্দ করা অংশ ইউনিট বিক্রির মাধ্যমে উত্তোলন করা হবে। ফান্ডটির প্রতিটি ইউনিটের অভিহিত মূল্য ১০ টাকা। বেমেয়াদি ফান্ডটির সম্পদ ব্যবস্থাপক পেনিনসুলা অ্যাসেট ম্যানেজমেন্ট কম্পানি লিমিটেড। ট্রাস্টি ও কাস্টডিয়ান ইনভেস্টমেন্ট করপোরেশন অব বাংলাদেশ।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা