kalerkantho

শনিবার । ৩১ আশ্বিন ১৪২৮। ১৬ অক্টোবর ২০২১। ৮ রবিউল আউয়াল ১৪৪৩

নতুন সম্পর্কে মনোজিত, বিবাহ বিচ্ছেদ চাইছেন শোভন-বান্ধবী বৈশাখী

অনলাইন ডেস্ক   

২২ সেপ্টেম্বর, ২০২১ ১২:২০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



নতুন সম্পর্কে মনোজিত, বিবাহ বিচ্ছেদ চাইছেন শোভন-বান্ধবী বৈশাখী

বিবাহ বিচ্ছেদ চাইলেন কলকাতার সাবেক মেয়র শোভন চট্টোপাধ্যায়ের আলোচিত বান্ধবী বৈশাখী বন্দ্যোপাধ্যায়। তার স্বামী মনোজিৎ মণ্ডল অন্য সম্পর্কে জড়িয়েছেন এই অভিযোগে বিবাহ বিচ্ছেদের আবেদন করেছেন তিনি।

বৈশাখীর দাবি বেশ কয়েক বছর ধরে অন্য নারীর সঙ্গে সম্পর্কে রয়েছেন স্বামী মনোজিৎ মণ্ডলের। আর এ কথা মনোজিৎ তাকে জানিয়েছেন। নতুন করে জীবন শুরু করতে চান মনোজিৎ। এরপরই বিচ্ছেদের সিদ্ধান্ত নেন বৈশাখী।

অন্য দিকে, বৈশাখীর স্বামী মনোজিত বলছেন, “মনের দিক থেকে যখন আলাদা হয়েছি, তখনই বিবাহবিচ্ছেদ হয়ে গিয়েছে। আমার জীবনে বৈশাখী আছেন কোথায়? আমি কার সঙ্গে থাকব সেটা তো বৈশাখী ঠিক করে দিতে পারেন না।’’

তবে কি শেষমেশ শোভন চট্টোপাধ্যায়কে বিয়ে করবেন বৈশাখী? এ প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, ‘‘বিয়ে হবে কি না তা সময়ই বলবে। শোভনের সঙ্গে আমার সম্পর্ক স্বপ্নের মতো। একটা সুন্দর স্বপ্ন যেমন হয়, আমার প্রতিটা দিন তেমন কাটে।’’

গেলো তিন বছর ধরে একসাথে থাকছেন না মনোজিত  ও বৈশাখী। মনোজিত বলেন, তিনি একা থাকবেন নাকি অন্য কারও সঙ্গে থাকবেন, তা একান্তই তার সিদ্ধান্ত। অন্য দিকে বৈশাখীর দাবি, কোনও সম্পর্ক জোর করে আটকে রাখায় তিনি বিশ্বাস করেন না। শোভনের সঙ্গে সম্পর্ক শুরুর সময় তিনি মনোজিৎকে সব জানিয়েছিলেন। পাশাপাশি বৈশাখীর দাবি, বর্তমানে একজন নারীর সঙ্গে সম্পর্কে জড়িয়েছেন মনোজিৎ। তাদের দ্রুত বিয়ে করে ফেলা বা একসঙ্গে থাকা উচিত বলেও মনে করেন বৈশাখী।

বৈশাখী জানিয়েছেন, এই পরিস্থিতিতে তিনি মনোজিতের থেকে বিবাহবিচ্ছেদ চান। সেই অনুযায়ী আইনজীবীর সঙ্গে কথাও হয়েছে। তবে তার সন্তানের পিতা হিসেবে মনোজিৎ স্বীকৃতি পাবেন। ১২ বছরেরও বেশি সময় ধরে একসঙ্গে থেকেছেন বৈশাখী ও মনোজিৎ। মনোজিৎ পেশায় একটি বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক। তৃণমূলের সঙ্গেও তার যোগাযোগ রয়েছে। অন্য দিকে, কলেজে অধ্যাপনা করলেও আপাতত অব্যাহতি নিয়েছেন বৈশাখী।


 



সাতদিনের সেরা