kalerkantho

সোমবার । ২৩ ফাল্গুন ১৪২৭। ৮ মার্চ ২০২১। ২৩ রজব ১৪৪২

৬০০ পর্বে ‘মান অভিমান‘

অনলাইন ডেস্ক   

১৮ ফেব্রুয়ারি, ২০২১ ১২:৩৭ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



৬০০ পর্বে ‘মান অভিমান‘

দীপ্ত টিভির জনপ্রিয় ধারাবাহিক নাটক ‘মান অভিমান’ ৬০০ পর্বের মাইল ফলক স্পর্শ করেছে। ১৮ ফেব্রুয়ারি সন্ধ্যা ৭টায় মান অভিমান নাটকটির ৬০০তম পর্ব দীপ্ত টিভিতে প্রচারিত হবে। এত পথ অতিক্রম করেও ধারাবাহিকটি দর্শকপ্রিয়তায় শীর্ষস্থানটি ধরে রেখেছে বলে দাবি চ্যানেল কর্তৃপক্ষের।

বিখ্যাত লেখক জেন অস্টেনের জনপ্রিয় উপন্যাস 'প্রাইড অ্যান্ড প্রেজুডিস'-এর অনুপ্রেরণায় মান অভিমান নাটকটির চিত্রনাট্য করেছেন নাসিমুল হাসান এবং সংলাপ লিখেছেন সরোয়ার সৈকত। আশিষ রায়ের পরিচালনায় ২০১৯ সালের ৫ জানুয়ারি নাটকটি দীপ্ত টিভিতে প্রথম প্রচার শুরু হয়।

মান-অভিমান নাটকটি প্রতিদিন সন্ধ্যা ৭টায় দীপ্ত টিভিতে প্রচারিত হচ্ছে। নাটকের লাইন প্রোডিউসার জাহিদুল ইসলাম জাহিদ ৬০০ পর্বের দীর্ঘ যাত্রায় সঙ্গে থাকার জন্য শিল্পী, কলাকুশলী ও দর্শকদের ধন্যবাদ জানান।

মান অভিমান নাটকে অভিনয় করেছেন রোজী সিদ্দিকী, তোফা হাসান, সমাপ্তি মাশুক, ইফফাত আরা তিথি, সানজিদা ইসলাম, শিবলী নওমান, কাজী রাজু, মিলি বাশার, ইমিলা হকসহ আরো অনেকে।

মান অভিমান নাটকটি মূলত মধ্যবিত্ত পরিবারের পাঁচটি মেয়েকে কেন্দ্র করে আবর্তিত হয়েছে। নাটকটির ৬০০তম পর্বে দেখা যাবে, অনেক বাধা-বিপত্তি ও নাটকীয়তার পর বীথি আর ফরহাদের বিয়ে হলেও একটি দুর্ঘটনার কারণে বীথির আর শ্বশুরবাড়িতে যাওয়া হয় না। বিয়ের এক মাস পর ফরহাদ আসে বীথিকে নিতে। বাড়িতে বাসরের প্রস্তুতি নেওয়া হয়।

বউয়ের সাজে বীথি আসে তার শ্বশুরবাড়িতে। শাশুড়ি ফারহানা বীথিকে হাসিমুখে গ্রহণ করলেও মন থেকে মানতে পারে না। এদিকে বিয়ের শর্ত অনুযায়ী বীথির সঙ্গে বড় বোন রানুও স্থায়ীভাবে থাকতে আসে ওই বাড়িতে। কিন্তু দুই বোনের একই ছাদের নিচে সংসার করাটা সুখকর হয় না। দুই বোনের মধ্যে ঝামেলা তৈরি করতে চলে নানা ষড়যন্ত্র। বীথি-রানু কি পারবে সব ষড়যন্ত্র রুখে দিয়ে সুখে-শান্তিতে থাকতে? এভাবেই মান-অভিমান নাটকের গল্প সামনের দিকে এগিয়ে যায়।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা