kalerkantho

শনিবার। ২ মাঘ ১৪২৭। ১৬ জানুয়ারি ২০২১। ২ জমাদিউস সানি ১৪৪২

আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় পর্যায়ের পদ পেলেন জ্যোতি

অনলাইন ডেস্ক   

৬ জানুয়ারি, ২০২১ ১১:৫৫ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় পর্যায়ের পদ পেলেন জ্যোতি

ছোট-বড় দুই পর্দায়ই নিজের অভিনয়ে মেধার স্বাক্ষর রেখে চলেছেন জ্যোতিকা জ্যোতি। ২০০৫ সালে ‘আয়না’ চলচ্চিত্রের মাধ্যমে অভিষেক ঘটে তাঁর। এরপর একে একে বেলাল আহমেদের ‘নন্দিত নরকে’, তানভীর মোকাম্মেলের ‘রাবেয়া’ ও ‘জীবনঢুলী’, আজাদ কালামের ‘বেদেনী’সহ বেশ কিছু চলচ্চিত্রে অভিনয় করে প্রশংসিত হন এই অভিনেত্রী।

এ ছাড়া নাটকে তাঁর অভিনয় দর্শক মন জয় করে। অভিনয়ের পাশাপাশি রাজনীতিতেও এখন সক্রিয় তিনি। অভিনয়ের সঙ্গে সফলতার স্বাক্ষর রাখছেন রাজনীতির মাঠেও। সেই ধারাবাহিকতায় এবার তাঁর নামের সঙ্গে যোগ হলো নতুন একটি পরিচয়। আওয়ামী লীগের বন ও পরিবেশ বিষয়ক উপকমিটিতে সদস্য পদ পেলেন জ্যোতিকা জ্যোতি।

জ্যোতিকা জ্যোতি বলেন, বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় উপ কমিটির সদস্য পদে আমাকে মনোনীত করা হয়েছে। আমি আওয়ামী লীগের বন ও পরিবেশ উপকমিটির সদস্য হয়ে কাজ করব| উপমহাদেশের প্রাচীনতম এই রাজনৈতিক সংগঠনের সঙ্গে সরাসরি যুক্ত হওয়া আমার জন্য খুব আনন্দের। এ ছাড়া যিনি আমার জীবনের একমাত্র আইডল, বাংলাদেশের মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনা দলটির বর্তমান সভাপতি। তাঁর সভাপতিত্বে কর্মী হিসেবে কাজ করার সুযোগ পাওয়া আরো বেশি আনন্দের, সৌভাগ্যের! পরিবেশ নিয়ে কাজ করা আমার চিরদিনের আগ্রহ। সব মিলিয়ে আমি সত্যি খুব খুশি। আর যিনি এই চমৎকার জায়গাটিতে আমাকে মনোনীত করেছেন, আওয়ামী লীগের বন ও পরিবেশ উপকমিটির সাধারণ সম্পাদক শ্রদ্ধেয় দেলোয়ার হোসেন ভাই, তাঁর প্রতি অশেষ কৃতজ্ঞতা!

জ্যোতি বলেন, দলে যুক্ত হওয়া মানেই দায়িত্ব তৈরি হওয়া।আমি দায়িত্ব এড়াতে পারি না বলে সুযোগ থাকা সত্ত্বেও সময়ের অভাবে দলে নাম লিখাইনি। কিন্তু এবার আমাদের দারুণ জনপ্রিয় ও ডায়নামিক লিডার দেলোয়ার ভাই আমাকে বুঝিয়েছেন কিভাবে কাজ করা সম্ভব। তাঁর জন্যই আমি কনফিউজড না থেকে সিদ্ধান্ত নিতে পেরেছি। আমি খুবই খুশি যে ওনার মতো একজন দারুণ মানুষ আমার তথা আমাদের কমিটির লিডার!
পরিবেশের ওপর মাঠপর্যায়ে কাজ করব বলে বছর দুই ধরে একটি সংগঠন তৈরির পরিকল্পনা করছিলাম। এখন দেশের সবচেয়ে বড় সংগঠনটির হয়েই পরিবেশ নিয়ে কাজ করার সুযোগ হলো, যা আমার কাজের পরিধিকে আরো বড় করে তুলবে। আমি আশা করি, আমাদের কমিটির সবাই মিলে একটি সবুজ ও সুন্দর বাংলাদেশ বিনির্মাণে সময়ের গতিতে এগিয়ে যাব।

এই অভিনেত্রী বলেন, আপসহীন বিশ্বনেতা, মাননীয় প্রধানমন্ত্রী  শেখ হাসিনার স্বপ্ন বাস্তবায়ন ত্বরান্বিত করতে আমরা সর্বদা প্রস্তুত যেকোনো সময়, যেকোনোভাবে।  আমাকে কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্যপদে যোগ্য বিবেচনা করে মনোনীত করায় ধন্যবাদ জানাই আমার কমিটির চেয়ারম্যান অধ্যাপক ড. খন্দকার বজলুল হক, সদস্যসচিব আওয়ামী লীগের বন ও পরিবেশ বিষয়ক সম্পাদক দেলোয়ার হোসেন এবং আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক শ্রদ্ধেয় ওবায়দুল কাদের স্যারকে।

বিনোদন অঙ্গনে পরিচিত মুখ জ্যোতিকা জ্যোতি ২০১৮ সালে ময়মনসিংহ-৩ (গৌরীপুর) আসন থেকে উপনির্বাচন এবং সংসদ নির্বাচনে মনোনয়নপত্র সংগ্রহ করেছিলেন। কিন্তু টিকিট না পেলেও দলীয় প্রার্থীর পক্ষে বেশ সরব ছিলেন রাজনীতির মাঠে।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা