kalerkantho

সোমবার । ২৯ আষাঢ় ১৪২৭। ১৩ জুলাই ২০২০। ২১ জিলকদ ১৪৪১

করোনা তহবিলের জন্য নগ্ন ছবি নিলামে

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

৫ জুন, ২০২০ ১৭:১২ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



করোনা তহবিলের জন্য নগ্ন ছবি নিলামে

দু-বছর আগে তাঁর শরীরী বিভঙ্গ সোশ্যাল মিডিয়ায় ঝড় তুলেছিল। শুধুমাত্র শরীরের ক্যারিশমা দেখাতেই ক্যামেরার সামনে নগ্ন হয়েছিলেন অভিনেত্রী জেনিফার অ্যানিস্টন। পঞ্চাশ-ছোঁয়া বয়সে অমন নগ্ন সৌন্দর্যের মৌতাতে আবিষ্ট ছিলেন নেটিজেনরা। হলিউডের সেই অভিনেত্রী-পরিচালক-প্রযোজক আবার নগ্ন হলেন সম্পূর্ণ ভিন্ন, মহত্‍‌ এক উদ্দেশ্যে।

কভিড-১৯ তহবিলর অর্থ জোগাড়ে নিজের নগ্ন ছবি নিলামে তোলার সম্মতি দিলেন পঞ্চাশ-ঊর্ধ্ব অভিনেত্রী। ইনস্টাগ্রামে জেনিফার জানিয়েছেন, একটি সংগঠনের মাধ্যমে তাঁর নগ্ন ছবি কয়েক দিনের মধ্যেই নিলামে উঠতে চলেছে। নিলামে যে অর্থ উঠবে, তা দিয়ে নিখরচে করোনা টেস্ট করবে সংগঠনটি।

দু-বছর আগে নেটফ্লিক্সের নতুন একটি ছবির শ্যুটিং চলাকালীন দু-ঘণ্টার বিরতি নিয়েছিলেন। সেই ফাঁকে ধরা পড়ে তাঁর নগ্নতা। নীলরঙা এক জোড়া বিকিনিতে মোহিনী সৌন্দর্য। পুলের পাশে সান বাথ নিচ্ছিলেন। রোদচান শেষে নিজের বিকিনি জোড়া বদল করেতে গিয়েই বেধেছিল বিপত্তি। অকস্মাত্‍‌ উন্মুক্ত হয় তাঁর বুক। সেই নগ্নতা ছড়িয়ে পড়ে নেটদুনিয়ায়।

সেইসঙ্গে জোর গুঞ্জনও। অনেকেরই বক্তব্য, জেনিফার ইচ্ছে করে নিজের নগ্ন শরীর প্রদর্শন করেছেন। কেউ আবার অভিনেত্রীর ফিটনেসের দরাজ প্রশংসা করেছেন। আবার কারও বক্তব্য ছিল, ফিটনেস ভালো বলেই নগ্ন হয়ে তা দেখাতে হবে?

জেনিফার জানিয়েছেন, সম্প্রতি নিলামে দেওয়া নগ্ন ছবিটি এখনকার নয়। প্রায় ২৫ বছর আগের। ১৯৯৫ সালে ফোটোগ্রাফার মার্ক সেলিগার তাঁর নগ্ন সৌন্দর্য লেন্সবন্দি করে রেখেছিলেন।

জেনিফার অ্যানিস্টন একা নন। উদ্যোগে শামিল লিওনার্দো ডিক্যাপ্রিও, বিলি এলিশের মতো সেলিব্রিটিরাও। নিলামের জন্য তাঁরাও ছবি দিয়েছেন। এইসময় 

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা