kalerkantho

শনিবার । ৯ ফাল্গুন ১৪২৬ । ২২ ফেব্রুয়ারি ২০২০। ২৭ জমাদিউস সানি ১৪৪১

বাকযুদ্ধে নাসিরউদ্দিনের পাশে দাঁড়ালেন শশী থারুর

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

২৪ জানুয়ারি, ২০২০ ১৮:৪৬ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



বাকযুদ্ধে নাসিরউদ্দিনের পাশে দাঁড়ালেন শশী থারুর

বুধবার বলিউডের দুই বর্ষীয়ান অভিনেতা নাসিরুদ্দিন শাহ এবং অনুপম খেরের বাকযুদ্ধে সগরগরম হয়ে উঠেছিল নেটদুনিয়া। প্রসঙ্গ সেই NRC, CAA। গেরুয়া সমর্থক অনুপম খেরকে কোনওরকম রেয়াত না করেই বাক্যবাণ ছুঁড়েছেন নাসিরুদ্দিন শাহ।

বলেছেন, “অনুপম ক্লাউন!” পালটা দিয়েছেন খেরও। অনুপমের সমর্থনে মিজোরামের প্রাক্তন রাজ্যপাল স্বরাজ কৌশলও (প্রয়াত সুষমা স্বরাজের স্বামী) নাসিরুদ্দিনকে তোপ দেগেছেন সোশ্যাল মিডিয়ায়। বলেছেন, “নাসিরুদ্দিন আপনি অকৃতজ্ঞ।” কটাক্ষ করেছেন নাসিরুদ্দিনের ধর্ম নিয়েও। এবার নাসিরুদ্দিনের পাশে দাঁড়ালেন কংগ্রেস সাংসদ শশী থারুর। টুইটে একহাত নিলেনও স্বরাজ কৌশলকে।

অনুপমকে ‘ক্লাউন’ বলার পর, স্বরাজ কৌশল টুইটে লিখেছিলেন যে, “নাসিরুদ্দিন আপনি একজন অকৃতজ্ঞ মানুষ। এই দেশ আপনাকে নাম, যশ, অর্থ সব দিয়েছে। তবুও আপনি হতাশ। আপনি আপনার ধর্মের বাইরে গিয়ে বিয়ে করেছেন। দেশ থেকে কেউ কখনও একটি কথাও বলেননি। আপনার ভাইও ভারতীয় সেনাবাহিনির উচ্চপদস্থ কর্মকর্তা ছিলেন। আপনাকে কি সমান সুযোগের চেয়ে একটু বেশি দেওয়া হয়ে গিয়েছে?” এর প্রত্যুত্তরেই নাসিরুদ্দিনের হয়ে ময়দানে নামেন শশী থারুর।

কোনওরকম রাখঢাক না করে মেরুকরণের রাজনীতিকে কটাক্ষ করে শশী পালটা টুইটে লেখেন, “গভর্নর সাহেব, ধর্মের বাইরে বিয়ে করাও কি এখন দেশবিরোধী? নাকি অনুপম খেরের সমালোচনা করতেই। একজন বন্ধুর পক্ষে কথা বলার জন্য, এসব পন্থা বেছে নেবেন না!”

‘আ ওয়েডনেসডে’ সিনেমার পর আবারও নাসিরুদ্দিন-অনুপমকে একে অপরের বিরুদ্ধে লড়তে দেখা গেল সেই বুধবারেই। ‘রিল লাইফে’ নয়, বরং ‘রিয়েল লাইফে’ ঘটল। গেরুয়া সমর্থক অনুপমকে কটাক্ষ করে নাসিরুদ্দিন বলেন, “ক্ষমতাবানদের চামচাগিরি করা ওঁর রক্তে রয়েছে। অনুপম খেরের মতো কেউ কেউ আবার সোশ‌্যাল মিডিয়ায় খুব সক্রিয়। কিন্তু আমার মনে হয় না, ওঁর কথার কোনও গুরুত্ব দেওয়া উচিত। অনুপম খের আসলে একটা ‘ক্লাউন’ (ভাঁড়)! ন্যাশনাল স্কুল অফ ড্রামা কিংবা NFTII-এ ওঁর ব‌্যাচের যে কাউকে জিজ্ঞাসা করতে পারেন, সকলে জানে যে ও ক্ষমতাবানদের চামচাগিরি করতে ভালবাসে।”

এরপর অভিজ্ঞ অভিনেতাকে পালটা দিলেন অনুপমও। বললেন, “কখনও আপনার সম্পর্কে কটূক্তি করিনি, কিন্তু আজ জবাব দিতে বাধ‌্য হচ্ছি। আমি বলতে বাধ‌্য হচ্ছি, প্রচুর সাফল‌্য পাওয়া সত্ত্বেও আপনি আপনার গোটা জীবন চরম হতাশায় কাটিয়েছেন। আপনার মনের গহনে এমন কিছু মতাদর্শ ঢুকে গিয়েছে, যার জন‌্য আপনি কোনটা ঠিক আর কোনটা ভুল, বিচার করতে ভুলে গিয়েছেন। যদি আমার নিন্দা করে আপনি প্রচার পেতে চান, তাহলে সেটা করেই খুশি থাকুন। আর আমার রক্তে কী আছে জানেন? ভারত আছে। সেটা বুঝতে শিখুন।’’

সূত্র: সংবাদ প্রতিদিন

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা