kalerkantho

শনিবার । ০৭ ডিসেম্বর ২০১৯। ২২ অগ্রহায়ণ ১৪২৬। ৯ রবিউস সানি ১৪৪১     

দুই ছেলে-মেয়েকে সাথে নিয়ে বিয়ে করলেন 'হঠাৎ বৃষ্টি'র নায়িকা

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

৩ ডিসেম্বর, ২০১৯ ১১:৩৫ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



দুই ছেলে-মেয়েকে সাথে নিয়ে বিয়ে করলেন 'হঠাৎ বৃষ্টি'র নায়িকা

১৯৯৮ সালে বাসু চ্যাটার্জি পরিচালিত ‘হঠাৎ বৃষ্টি’ ছবিটি মুক্তি পায়। সেই ছবি দিয়ে দুই বাংলার সিনেমায় অভিষেক ঘটে চিত্রনায়ক ফেরদৌস। তার সঙ্গে ছবিটিতে নায়িকা হিসেবে ছিলেন মিস ক্যালকাটা খ্যাত প্রিয়াঙ্কা ত্রিবেদী।

ছবিতে আরও দুটি প্রধান নারী চরিত্রে আছেন শ্রীলেখা মিত্র ও জুন মালিয়া। ছবিটিতে রাজস্থানী যুবতীর চরিত্রে অভিনয় করেছিলেন জুন। জনপ্রিয় গান ‘সোনালী প্রান্তরে’-তে ফেরদৌস যখন ঠোঁট মেলান তখন রাজস্থানী নাচে দর্শকের মন ভরিয়েছেন এই নায়িকা। 

কলকাতার বাংলা সিনেমার সুপরিচিত অভিনেত্রী জুন মালিয়া। গত শনিবার পারিবারিক আয়োজনে দীর্ঘদিনের প্রেমিক সৌরভ চ্যাটার্জির সঙ্গে বিবাহবন্ধনে আবদ্ধ হন তিনি। জুনের দুই ছেলেমেয়ে দাঁড়িয়ে থেকে মায়ের বিয়ে দেন।

দীর্ঘদিন ধরেই সৌরভ চট্টোপাধ্যায়ের সঙ্গে সম্পর্ক রয়েছে জুনের। তার ব্যক্তিগত জীবন সম্পর্কে কোনোদিনই খুব বেশি কিছু জানা যায় না, সোশ্যাল মিডিয়াতেও তিনি থাকেন না। শুধু জানা যায় অনেক বছর আগেই তার প্রথম বিয়ে ভেঙে গিয়েছে। দুই সন্তান ছেলে শিবেন্দ্র ও মেয়ে শিবাঙ্গীকে এত বছর ধরে একাই বড় করেছেন জুন মালিয়া। তারা দু’জনেই এখন বড় হয়েছে। তাই হয়ত বিয়ের ফুরসত পেয়েছেন জুন, এমনটাই মনে করছিল তার অনুগামীরা।

বিয়ের দিন মেয়ের বাড়ির অতিথিরা লাল পোশাকে সেজেছিলেন। বিয়েতে লাল পোশাকে দেখা যায় জুনের ছেলে-মেয়েকে। ডিজাইনার দেব ও নীলের পোশাকে সেজেছিলেন জুন ও সৌরভ। অতিথিদের আপ্যায়নের দায়িত্বে ছিলেন খোদ জুনের ছেলে শিবেন্দ্র ও মেয়ে শিবাঙ্গী। মায়ের এই সিদ্ধান্তে ছেলে মেয়েও খুব খুশি।

জুন অভিনীত সর্বশেষ মুক্তিপ্রাপ্ত সিনেমা ‘মিতিন মাসি’। গত পূজায় মুক্তি পেয়েছে সিনেমাটি। অভিনয় ক্যারিয়ারে অনেক দর্শকপ্রিয় সিনেমা উপহার দিয়েছেন জুন। তার অভিনীত উল্লেখযোগ্য সিনেমা হলো ‘হঠাৎ বৃষ্টি’, ‘তিন ইয়ারির কথা’, ‘একলা চলো’, ‘জুলফিকার’, ‘এবার শবর’, ‘হর হর ব্যোমকেশ’ প্রভৃতি।

আমার যা চেহারা, অভিনেতা হওয়ার কোনো চান্সই ছিল না

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা