kalerkantho

বৃহস্পতিবার । ২০ জুন ২০১৯। ৬ আষাঢ় ১৪২৬। ১৬ শাওয়াল ১৪৪০

জানা-অজানা

সরবোন বিশ্ববিদ্যালয়

[ষষ্ঠ শ্রেণির চারুপাঠ বইয়ে ‘সরবোন বিশ্ববিদ্যালয়’-এর কথা উল্লেখ আছে]

ইন্দ্রজিৎ মণ্ডল    

১৫ মে, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



সরবোন বিশ্ববিদ্যালয়

১২৫৭ সালে ফরাসি ধর্মতত্ত্ববিদ রোবের দ্য সরবোন প্যারিসে নিজ নামে সরবোন কলেজ প্রতিষ্ঠা করেন। মূলত ধর্মতত্ত্ব নিয়ে গবেষণার উদ্দেশে কলেজটি স্থাপন করেন সরবোন। মধ্য যুগে প্যারিস বিশ্ববিদ্যালয়ের উল্লেখযোগ্য কলেজগুলোর মধ্যে সরবোন ছিল প্রথম দিকে। পরে এ বিশ্ববিদ্যালয়টি সরবোন নামে পরিচিতি লাভ করে।

১৮৮৭ সালের ১০ ফেব্রুয়ারি সরবোন কলেজ বিল্ডিংটিকে একটি ঐতিহাসিক নিদর্শন করা হয়। বর্তমানে এটি প্যারিস বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রধান ভবন। প্যারিস বিশ্ববিদ্যালয়কে ১৩টি বিশ্ববিদ্যালয়ে বিভক্ত করা হয়। এই বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর মধ্যে তিনটি সরবোনের এই ভবনে ক্লাস বজায় রেখেছে এবং নিজেদের নামের সঙ্গে সরবোন যুক্ত করেছে। যেমন—প্যানথিয়ন সরবোন বিশ্ববিদ্যালয়, সরবোন নুভেল বিশ্ববিদ্যালয় ও প্যারিস সরবোন বিশ্ববিদ্যালয়। এ ছাড়া বিল্ডিংটিতে স্থান পেয়েছে ইকোল ন্যাশনাল দেস চার্টার (জাতীয় চার্টার বিদ্যালয়), ইকোল প্রাতিক দেস প্রোভঁস ইতুদ্যা (উচ্চশিক্ষার কারিগরি বিদ্যালয়), কোর্স দেস সিভিলাইজেশন ফ্রান্সেস দে লা সরবোন (ফরাসি সভ্যতার কোর্স সরবোন) এবং বিবলিওথেক দে লা সরবোন (সরবোনের পাঠাগার)।

বর্তমানে ফ্রান্সের মানুষ তথা ছাত্রদের কাছে সরবোন বলতে প্যানথিয়ন সরবোন বিশ্ববিদ্যালয়কে বোঝানো হয়। তবে প্যারিসের সব বিশ্ববিদ্যালয় নিজদের সরবোনের একটি অংশ (উত্তরসূরি) বলে মনে করে। ডক্টর মুহম্মদ শহীদুল্লাহ প্যারিসের এই সরবোন বিশ্ববিদ্যালয় থেকে পিএইচডি ডিগ্রি লাভ করেন।                                                

 

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা