kalerkantho

বুধবার । ২২ মে ২০১৯। ৮ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৬। ১৬ রমজান ১৪৪০

জানা-অজানা

গারো

[পঞ্চম শ্রেণির বাংলাদেশ ও বিশ্বপরিচয় বইয়ে গারোদের কথা উল্লেখ আছে]

১৩ এপ্রিল, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ১ মিনিটে



গারো

বাংলাদেশে বসবাসরত ক্ষুদ্র নৃগোষ্ঠীদের মধ্যে একটি গারো। এরা দেশের বিভিন্ন অঞ্চলে বসবাস করছে। প্রায় চার থেকে সাড়ে চার হাজার বছর আগে তারা তিব্বত থেকে এসে এ দেশে বসবাস শুরু করে। আচিক বা গারো তাঁদের নিজস্ব ভাষা। আদি ধর্ম সাংসারেক। তবে বর্তমানের বেশির ভাগ গারো খ্রিস্ট ধর্মাবলম্বী। গারোদের সমাজব্যবস্থা মাতৃতান্ত্রিক। মা-ই পরিবারের কর্তা ও সম্পত্তির অধিকারী হন। পরিবারের সন্তানসন্ততিরা মায়ের পদবি ধারণ করে। গারোদের প্রধান খাদ্য ভাত। ভাতের সঙ্গে মাছ, মাংস ও শাকসবজি খায়। আগে গারোরা নদীর তীরে লম্বা এক ধরনের বাড়ি তৈরি করত, যা নকমান্দি নামে পরিচিত ছিল। বর্তমানে অন্যদের মতোই টিন এবং অন্যান্য উপকরণ দিয়ে বাড়ি তৈরি করে। গারো নারীদের ঐতিহ্যবাহী পোশাক দকবান্দা ও দকসারি। পুরুষরা শার্ট, লুঙ্গি, ধুতি পরেন। তাঁদের ঐতিহ্যবাহী উৎসাব ওয়াংগালা। এই উৎসাবে তাঁরা সূর্য দেবতাকে (সালজং) নতুন শস্য উৎসার্গ করেন। বিভিন্ন ধরনের বাদ্য বাজনা বাজিয়ে উৎসাবটি পালন করা হয়।

♦ আব্দুর রাজ্জাক

মন্তব্য