kalerkantho

বুধবার । ৭ ডিসেম্বর ২০২২ । ২২ অগ্রহায়ণ ১৪২৯ । ১২ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪৪

ধর্ষণ মামলায় কুমিল্লার ছাত্রলীগ নেতা কক্সবাজারে গ্রেপ্তার

কুমিল্লা প্রতিনিধি   

২৫ সেপ্টেম্বর, ২০২২ ০০:২৫ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



ধর্ষণ মামলায় কুমিল্লার ছাত্রলীগ নেতা কক্সবাজারে গ্রেপ্তার

কুমিল্লা উত্তর জেলা ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি আবু কাউছার অনিক। ছবি: সংগৃহীত

এক গৃহবধূকে ধর্ষণের অভিযোগে দায়ের করা মামলায় কুমিল্লা উত্তর জেলা ছাত্রলীগের সদ্য বিদায়ী সভাপতি আবু কাউছার অনিককে (৩৮) কক্সবাজারে গ্রেপ্তার করা হয়েছে বলে খবর পাওয়া গেছে।

শনিবার (২৪ সেপ্টেম্বর) দুপুর ১২টার দিকে কক্সবাজার শহরের কলাতলি এলাকার সোনারবাংলা হোটেল থেকে তাকে গ্রেপ্তার করে র‍্যাব-১৫ কক্সবাজারের সদস্যরা। এ সময় অনিক তার ব্যবহৃত প্রাইভেটকারে (চট্ট মেট্রো গ- ১১-৯৩১৪) চড়ে পালিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করছিলেন বলেও খবর পাওয়া যায়।

শনিবার রাত ৯টার দিকে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন র‍্যাব-১৫ এর অধিনায়ক লে. কর্নেল খায়রুল ইসলাম সরকার।

বিজ্ঞাপন

তিনি বলেন, এ ঘটনার বিস্তারিত পরে জানানো হবে। আমাদের আরো কিছু কাজ বাকি আছে, সেগুলো গুছিয়ে বিষয়টি আনুষ্ঠানিকভাবে জানানো হবে।

ছাত্রলীগ নেতা অনিক কুমিল্লার দেবিদ্বার উপজেলার নুরপুর গ্রামের ফজলুল হকের ছেলে। ২০১৪ সালের ৪ ডিসেম্বর থেকে চলতি বছরের ২৫ মার্চ পর্যন্ত তিনি কুমিল্লা উত্তর জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি পদে ছিলেন।

র‌্যাব, ভুক্তভোগী নারী ও স্থানীয়দের সঙ্গে কথা বলে জানা গেছে, গত ৩১ আগস্ট সকাল ১০টার দিকে কুমিল্লার আদর্শ সদর উপজেলার আলেখারচর এলাকায় বৈশাখী আবাসিক হোটেলে এক গৃহবধূকে (২২) ধর্ষণের অভিযোগে ওই রাতেই মামলা হয়। ওই গৃহবধূ বাদী হয়ে কুমিল্লার কোতোয়ালি মডেল থানায় চারজনকে আসামি করে মামলাটি করেন। ওই মামলার ৩ নম্বর আসামি করা হয় কুমিল্লা উত্তর জেলা ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি আবু কাউছার অনিককে। মামলার পর আবু কাউছার গা ঢাকা দেন। অনিকের বিরুদ্ধে ধর্ষণে সহযোগিতা করার অভিযোগ আনেন ওই নারী।

মামলার অপর তিন আসামি হলেন- কুমিল্লার বুড়িচং উপজেলার পরিহলপাড়া গ্রামের তাজুল ইসলামের ছেলে আরব আলী, চান্দিনা উপজেলার মাধাইয়া গ্রামের মোহাম্মদ আলীর ছেলে জিলানী ও একই গ্রামের মনু মিয়ার ছেলে শাহজাহান মিয়া।



সাতদিনের সেরা