kalerkantho

মঙ্গলবার । ৪ অক্টোবর ২০২২ । ১৯ আশ্বিন ১৪২৯ ।  ৭ রবিউল আউয়াল ১৪৪৪

বাবা-মায়ের ঝগড়া থামাতে না পেরে ছেলের ছুরিকাঘাত, প্রাণ গেল বাবার

কুমিল্লা প্রতিনিধি   

১২ আগস্ট, ২০২২ ১৮:৪৯ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



বাবা-মায়ের ঝগড়া থামাতে না পেরে ছেলের ছুরিকাঘাত, প্রাণ গেল বাবার

কুমিল্লার বরুড়ায় বাবা-মায়ের ঝগড়া থামানোর চেষ্টা করে ব্যর্থ হয়ে বাবাকে ছুরিকাঘাত করে ছেলে লিমন মোল্লা। এ ঘটনায় চারদিন হাসপাতালে চিকিৎসাধীন থাকার পর বাবা জুলহাস মোল্লা মারা গেছেন। বৃহস্পতিবার রাত ১১টার দিকে কুমিল্লা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ওই ব্যক্তির মৃত্যু হয় বলে জানান হাসপাতালের জরুরি বিভাগের চিকিৎসক ডা. নাফিস ইমতিয়াজ উদ্দিন আহমেদ।   

নিহত জুলহাস মোল্লা উপজেলার চিতড্ডা ইউনিয়নের মুড়িয়ারা গ্রামের প্রয়াত আব্দুল হালিম মোল্লার ছেলে।

বিজ্ঞাপন

ঘটনার পর থেকেই ছেলে লিমন পলাতক রয়েছে বলে জানা গেছে। ডা. নাফিস ইমতিয়াজ উদ্দিন আহমেদ বলেন, 'জুলহাস মোল্লার কোমরে ছুরিকাঘাতের চিহ্ন আছে। আমরা তাকে পর্যাপ্ত চিকিৎসা দিয়েছি। কিন্তু আঘাত বেশি গভীর হওয়ায় তাকে বাঁচানো যায়নি। '

চিতড্ডা ইউপি চেয়ারম্যান মোহাম্মদ জাকারিয়া জানান, গত রবিবার মুড়িয়ারা মোল্লা বাড়ির জুলহাস মোল্লা ও তার স্ত্রী রূপা আক্তারের মধ্যে ঝগড়া হয়। ওই দম্পতির একমাত্র ছেলে লিমন তাদের ঝগড়া থামাতে বারবার চেষ্টা করেন। এতে ব্যর্থ হয়ে এক পর্যায়ে লিমন তার বাবার কোমরে ছুরিকাঘাত করলে তিনি মারাত্মক আহত হন। পরে তাকে উদ্ধার করে কুমিল্লা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে গেলে চিকিৎসাধীন অবস্থায় চারদিন পর বৃহস্পতিবার রাতে মারা যান জুলহাস।  

বরুড়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ইকবাল বাহার মজুমদার বলেন, পারিবারিক বিষয় হওয়ায় ঘটনাটি এত দিন গোপন ছিল। আজ শুক্রবার সকালে আমরা ঘটনাটি শুনেছি। ঘটনাটি তদন্ত করে প্রয়োজনীয় আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।



সাতদিনের সেরা