kalerkantho

মঙ্গলবার। ৯ আগস্ট ২০২২ । ২৫ শ্রাবণ ১৪২৯ । ১০ মহররম ১৪৪৪

সবার সামনেই পুড়ে মারা গেলেন ফাতেমা!

কুমিল্লা প্রতিনিধি   

৬ আগস্ট, ২০২২ ২০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



সবার সামনেই পুড়ে মারা গেলেন ফাতেমা!

কুমিল্লার চান্দিনায় একটি মাইক্রোবাসে আগুন লেগে পুড়ে মারা গেছেন এক নারী যাত্রী। ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের উপজেলার কুটুম্বপুর বাসস্ট্যান্ড এলাকায় শনিবার (৬ আগস্ট) বেলা ১১টার দিকে এ ঘটনা ঘটে।  

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, গাড়িটির চাকা হঠাৎ বিস্ফোরিত হয়ে ইঞ্জিনে আগুন লেগে যায়। এ সময় মাইক্রোবাসে থাকা চালকসহ সব যাত্রী তাড়াহুড়ো করে নেমে পড়েন।

বিজ্ঞাপন

তবে সেখান থেকে বের হতে পারেননি ফাতেমা বেগম (২৭) নামের এক নারী। একপর্যায়ে মাইক্রোবাসের মধ্যেই চিৎকার করতে করতে পুড়ে মারা যান তিনি।

নিহত ফাতেমা বেগমের বাড়ি ফরিদপুর জেলায়। তারা গাজীপুরের টঙ্গী এলাকায় ভাড়া থাকেন। এ ঘটনায় গাড়িতে থাকা একজন সামান্য আহত হয়েছেন। তাকে প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে বাড়ি পাঠানো হয়েছে বলে জানিয়েছেন ইলিয়টগঞ্জ হাইওয়ে পুলিশের ইনচার্জ এসআই প্রেমধন মজুমদার।  

স্থানীয়দের বরাত দিয়ে এসআই প্রেমধন মজুমদার জানান, মাইক্রোবাসটি ঢাকার টঙ্গী থেকে ৯ জন যাত্রী নিয়ে নোয়াখালীতে যাচ্ছিল। সেখানে নিহত ফাতেমার ভাইয়ের নতুন শ্বশুরবাড়ি। কয়েক দিন আগেই তার ভাইয়ের বিয়ে হয়। তাদের বহনকারী গাড়িটি কুটুম্বপুর এলে হঠাৎ গাড়ির চাকা ফেটে যায়। এ সময় রাস্তায় উল্টে পড়ে গাড়িতে আগুন ধরে যায়। স্থানীয়দের সহযোগিতায় গাড়ির চালকসহ আটজন যাত্রী বের হতে পারলেও ফাতেমা বের হতে পারেননি।  জ্বলন্ত গাড়িতে পরিবারের সামনেই পুড়ে মারা যান ফাতেমা। পরে ফায়ার সার্ভিস এসে গাড়ির আগুন নেভায়।

এসআই প্রেমধন মজুমদার আরো জানান, ওই গাড়িতে ফাতেমার নববিবাহিত ভাইসহ পরিবারের আট সদস্য ছিলেন। মাইক্রোবাসটি এখন আমাদের হেফাজতেই আছে। নিহতের লাশ পরিবার নিয়ে গেছে।



সাতদিনের সেরা