kalerkantho

রবিবার । ১৪ আগস্ট ২০২২ । ৩০ শ্রাবণ ১৪২৯ । ১৫ মহররম ১৪৪৪

করুণ মায়াবী চোখে মায়ার বাঁচার আকুতি

উল্লাপাড়া (সিরাজগঞ্জ) প্রতিনিধি   

৯ জুলাই, ২০২২ ১৭:৩৭ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



করুণ মায়াবী চোখে মায়ার বাঁচার আকুতি

অসুস্থ শিক্ষার্থী মায়া খাতুন।

মেধাবী শিক্ষার্থী মায়া (১৫)। জেএসসি পরীক্ষায় জিপিএ ৫ পেয়ে উত্তীর্ণ হয়েছিল। ইচ্ছা পড়ালেখা শেষ করে দেশের সেবা করবে। কিন্তু সেই ইচ্ছা মায়ার শেষ হতে চলেছে ধীরে ধীরে।

বিজ্ঞাপন

সম্প্রতি চিকিৎসক জানিয়েছেন তার দুটি কিডনিই নষ্ট হয়ে গেছে। বাঁচতে হলে অন্তত একটি কিডনি প্রতিস্থাপন প্রয়োজন মায়ার।

সিরাজগঞ্জের উল্লাপাড়া উপজেলার ঝিকিড়া মহল্লার মনিরুল ইসলামের মেয়ে মায়া। উল্লাপাড়া এইচ টি ইমাম গার্লস স্কুল অ্যান্ড কলেজের দশম শ্রেণির ছাত্রী সে। বেশ কিছুদিন ধরেই অসুস্থ ছিল মায়া খাতুন। সম্প্রতি চিকিৎসকরা পরীক্ষা-নিরীক্ষার পর তার দুটি কিডনিই অচল হয়ে গেছে বলে রিপোর্ট দিয়েছেন। বর্তমানে তার চিকিৎসা অত্যন্ত ব্যয়বহুল। মায়ার বাবা ঢাকায় একটি পোশাক কারখানার কর্মী। তার একার আয়ে চলে সংসার।

মায়ার পরিবারের পক্ষে কিডনি প্রতিস্থাপন সম্ভব নয়। চিকিৎসা নিয়ে মায়া ভবিষ্যতে তার স্বপ্ন পূরণ করতে চায়।

মায়া খাতুন জানায়, তার শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের অধ্যক্ষ মো. সিরাজুল ইসলাম ব্যক্তিগতভাবে উদ্যোগ নিয়ে শিক্ষক ও শিক্ষার্থীদের নিকট থেকে কিছু অর্থ উঠিয়ে তার চিকিৎসার জন্য দেওয়ার ঘোষণা দিয়েছেন।

মনিরুল ইসলাম জানান, মায়াকে বাঁচাতে মোটা অঙ্কের টাকার প্রয়োজন। কিন্তু তার অভাবের সংসারে এই অর্থের জোগান দেওয়া কোনোভাবেই সম্ভব নয়। তিনি তার মেয়েকে বাঁচানোর জন্য দেশের প্রধানমন্ত্রীসহ সহৃদয় ব্যক্তিদের সহযোগিতা কামনা করেছেন।  

মায়াকে সহযোগিতা করতে চাইলে ০১৩১৭৭৯৫৯৪৭ নম্বরে হৃদয়বান ব্যক্তিদের যোগাযোগের অনুরোধ করেছেন মনিরুল ইসলাম। এই নম্বরে বিকাশ অ্যাকাউন্ট খোলা আছে বলে জানান তিনি। এ ছাড়া
ইসলামী ব্যাংকেও একটি অ্যাকাউন্ট রয়েছে। হিসাব নম্বর ২০৫০৩১৭০১০০০৩৩৪৪০৯।



সাতদিনের সেরা