kalerkantho

রবিবার । ২৬ জুন ২০২২ । ১২ আষাঢ় ১৪২৯ । ২৫ জিলকদ ১৪৪৩

দেওয়ানগঞ্জে ক্লিনিক ও ডায়াগনস্টিকে যৌথ অভিযান

তিনটি প্রতিষ্ঠানকে ৭০ হাজার টাকা জরিমানা এবং ২টি ক্লিনিক সিলগালা করা হয়েছে

দেওয়ানগঞ্জ প্রতিনিধি    

২৬ মে, ২০২২ ১১:১৪ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



দেওয়ানগঞ্জে ক্লিনিক ও ডায়াগনস্টিকে যৌথ অভিযান

জামালপুরের দেওয়ানগঞ্জে প্রাইভেট ক্লিনিক এবং ডায়াগনস্টিক সেন্টারে টাস্কফোর্সের যৌথ অভিযান পরিচালিত হয়েছে। অভিযানে ৩ প্রতিষ্ঠানকে ৭০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়। এ ছাড়া বৈধ কাগজপত্র না থাকায় ২টি ডায়াগনস্টিক সেন্টারকে সিলগালা করে দেওয়া হয়েছে। গতকাল বুধবার (২৫ মে) বিকেল ৪টা থেকে সন্ধ্যা সাড়ে ৬টা পর্যন্ত এ অভিযান চলে।

বিজ্ঞাপন

 

অভিযান সূত্রে জানা গেছে, দেওয়ানগঞ্জে অবৈধভাবে পরিচালিত ক্লিনিক ও ডায়াগনস্টিক সেন্টারের বিরুদ্ধে টাস্কফোর্সের সাঁড়াশি অভিযান পরিচালিত হয়। পৌর শহরের পাঁচটি ক্লিনিকে অভিযান চলে। ক্লিনিক ও ডায়াগনস্টিক সেন্টারের লাইসেন্সের মেয়াদোত্তীর্ণ হওয়ায় এবং অন্যান্য অভিযোগে রাফি ডায়াগনস্টিক সেন্টারকে ২০ হাজার টাকা, বিসমিল্লাহ ক্লিনিককে ৩০ হাজার টাকা, বিসমিল্লাহ ডায়াগনস্টিক সেন্টারকে ২০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়। ক্লিনিকের বৈধ কাগজপত্র দেখাতে না পারায় আধুনিক ও সুরুভী ডায়াগনস্টিক সেন্টারকে সিলগালা করা হয়েছে। নতুন করে লাইসেন্স নবায়ন করে অন্যান্য শর্ত পূরণ না করা পর্যন্ত এসব বন্ধ থাকবে।  

দেওয়ানগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) কামরুন্নাহার শেফা কালের কণ্ঠকে জানান, স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের জারীকৃত নতুন পরিপত্রের আলোকে গৃহীত সিদ্ধান্ত মোতাবেক এই যৌথ অভিযান পরিচালিত হয়েছে। অভিযানে আমরা বড় ধরনের অসঙ্গতি পেয়েছি, এত দিন  কিভাবে এসব ক্লিনিক চলছিল তাতে আমরা বিস্মিত। এতে জনস্বাস্থ্য বিঘ্নিত হয়। এ ধরনের কার্যক্রম করতে দেওয়া হবে না।

অভিযানের সঙ্গে ছিলেন দেওয়ানগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) কামরুন্নাহার শেফা, উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডাক্তার আহসান হাবীব, র‍্যাব-১৪ জামালপুর ক্যাম্পের কম্পানি কমান্ডার স্কোয়াড্রন লিডার আশিক উজ্জামান এবং স্কোয়াড কমান্ডার ও সহকারী পুলিশ সুপার এম এম সবুজ রানাসহ র‍্যাবের বিপুলসংখ্যক সদস্য।



সাতদিনের সেরা