kalerkantho

বুধবার ।  ১৮ মে ২০২২ । ৪ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯ । ১৬ শাওয়াল ১৪৪৩  

বিএম ক‌লেজের ছাত্রী‌কে হাতেম আলীর ছাত্রের মারধরের অভিযোগ

বরিশাল অফিস   

২৪ জানুয়ারি, ২০২২ ২৩:৫৩ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



বিএম ক‌লেজের ছাত্রী‌কে হাতেম আলীর ছাত্রের মারধরের অভিযোগ

বরিশাল সরকারি ব্রজমোহন (বিএম) কলেজের এক ছাত্রীকে রাস্তায় মারধরের অভিযোগ উঠেছে হাতেম আলী কলেজের ছাত্র নুজাইম ইসলাম শাওনের বিরুদ্ধে। তিনি নিজেকে ছাত্রলীগ কর্মী বলে পরিচয় দেন।  

মারধরের শিকার ছাত্রী বিএম কলেজের রাষ্ট্রবিজ্ঞান বিভাগের দ্বিতীয় বর্ষের শিক্ষার্থী। র‌বিবার সন্ধ্যায় বিএম কলেজের প্রথম গেটের সামনে ছাত্রীকে মারধরের ঘটনা ঘটে।

বিজ্ঞাপন

এই ঘটনায় সোমবার কলেজ কর্তৃপক্ষ ও থানায় লিখিত অভিযোগ দিয়েছেন ওই ছাত্রী।

অভিযোগে বলা হয়, সরকারি সৈয়দ হাতেম আলী কলেজের ছাত্র নুজাইম ইসলাম শাওন বিভিন্ন সময় তাকে উত্যক্ত করতেন। এক বছর আগে শাওন প্রেমের প্রস্তাব দিলে তিনি প্রত্যাখ্যান করেন। এতে ক্ষিপ্ত হয়ে তিনি ওই ছাত্রীর পরিচিতজনের মাধ্যমে একাধিকবার হুমকি দিয়েছেন।

ছাত্রী জানান, র‌বিবার সন্ধ্যায় শাওন বিএম কলেজের প্রথম গেটের সামনে সড়কে তাকে আটকে মারধর করেন। মারধরের ঘটনা কাউকে জানালে শাওনের সহযোগী বিএম কলেজের পদার্থ বিজ্ঞান বিভাগের ছাত্র সাগর ওই ছাত্রীকে কলেজে ঢুকতে দেবেন না বলে হুমকি দেন। এই ঘটনায় তি‌নি আজ সোমবার দুপুরে থানা ও কলেজে অভিযোগ দিয়েছেন বলে জানান।

ছাত্রী লাঞ্ছনায় অভিযুক্ত মো. সাগর বলেন, ফ্লাইট সার্জেন্ট ফজলুল হক হলে আমার রুমেই থাকে শাওন। সে ছাত্রলীগ করে। আর সেদিন তো আমি ছাড়িয়ে দিয়েছি, কেন আমার বিরুদ্ধে অভিযোগ দেওয়া হলো বুঝতেছি না।

অভিযোগের বিষয়ে জানতে নুজাইম ইসলাম শাওনকে একাধিকবার ফোন দেওয়া হলেও তিনি রি‌সিভ ক‌রেন‌নি।

কোতোয়ালি মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আজিমুল করিম বলেন, ছাত্রীকে মারধরের ঘটনায় নুজাইম ও সাগর নামের দুজনের নামে থানায় লিখিত অভিযোগ দেওয়া হয়েছে। ঘটনা তদন্তে পুলিশ কাজ শুরু করেছে। হামলাকারীদের শিগগিরই আইনের আওতায় আনা হবে।

সরকারি ব্রজমোহন কলেজের অধ্যক্ষ প্রফেসর ড. মোহাম্মদ গোলাম কিবরিয়া বলেন, এক ছাত্রী লিখিত অভিযোগ দিয়ে গেছে। প্রফেসর আক্তারুজ্জামানকে প্রধান করে তিন সদস্যের তদন্ত কমিটি করেছি। প্রতিবেদন পেলেই হামলাকারীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।



সাতদিনের সেরা