kalerkantho

মঙ্গলবার ।  ১৭ মে ২০২২ । ৩ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯ । ১৫ শাওয়াল ১৪৪৩  

'আইজ থাকি পেটখান ভরি ভাত খাম'

বোচাগঞ্জ (দিনাজপুর) প্রতিনিধি   

২২ জানুয়ারি, ২০২২ ২২:১৯ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



'আইজ থাকি পেটখান ভরি ভাত খাম'

চাউল-আটার দাম খালি বাড়েছে। হারাগুলা চাউল আটা কিনিবা না পারি খাই না খাই কোনোমত দিন পার করছন। সরকার হামার বাড়ির গড়ত কম দামে (ওএমএস) চাউল আটা বিক্রি করেছে শুনিয়া সকালে লাইনত দাঁড়াইছিনু। ৫ সের করি চাউল নিছি।

বিজ্ঞাপন

আইজ থাকি পেটখান ভরি ভাত খাম।

কথাগুলো বলছিলেন দিনাজপুরের বোচাগঞ্জ উপজেলার সেতাবগঞ্জ পৌরসভার ৭নং ওয়ার্ডের ছটকুর মোড় এলাকার চুড়া মনি (৫০) ও নার্গিস বেগম (৪৮)। তাদের দুজনেরই স্বামী দিনমজুর। চাল পেয়ে তারা বেজায় খুশি।

চাল আটার দাম বেড়ে যাওয়ায় ২০ জানুয়ারি থেকে সারা দেশে উপজেলা পর্যাযে ওএমএস কার্যক্রম শুরু হয়েছে। খেটে খাওয়া দিনমজুর মানুষ লাইনে দাঁড়িয়ে ৫ কেজি চাল ও ৩ কেজি করে আটা ক্রয় করছেন। ব্যাপক সাড়া পড়েছে। সকাল ৯টায় শুরু করে ১ হাজার কেজি চাল ও ১ হাজার কেজি আটা দুপুর না হতেই শেষ হয়ে যায়।

৭নং ওয়ার্ডের ছটকুর মোড় এলাকার ডিলার আব্দুল মতিন চৌধুরী বলেন, প্রতিদিন মানুষ সকাল থেকে ভিড় করছেন। প্রতিদিন ১ হাজার কেজি আটা ও ১ হাজার কেজি চাল দেওয়া হচ্ছে।

উপজেলার নির্বাহী কর্মকর্তা ছন্দা পাল বলেন, ৪ জন ডিলারের মাধ্যমে বোচাগঞ্জ উপজেলায় ওএমএসের মাধ্যমে চাল আটা বিক্রি করা হচ্ছে। আমি নিজেও পরিদর্শনের পাশাপাশি তদারকি করার জন্য ৪ জন দায়িত্বপ্রাপ্ত অফিসার নিযুক্ত করেছি। মানুষ লাইনে দাঁড়িয়ে চাল আটা সংগ্রহ করছে। এই কার্যক্রম অব্যাহত থাকলে দিনমজুর মানুষের উপকার হবে।  



সাতদিনের সেরা