kalerkantho

শুক্রবার । ১৪ মাঘ ১৪২৮। ২৮ জানুয়ারি ২০২২। ২৪ জমাদিউস সানি ১৪৪৩

আনন্দ মোহন কলেজে ছাত্রলীগের তালা, ছাত্রাবাস বন্ধ ঘোষণা

নিজস্ব প্রতিবেদক, ময়মনসিংহ    

৫ ডিসেম্বর, ২০২১ ০৩:১৩ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



আনন্দ মোহন কলেজে ছাত্রলীগের তালা, ছাত্রাবাস বন্ধ ঘোষণা

ময়মনসিংহে মহানগর ও জেলা ছাত্রলীগের বিরোধের জের ধরে সরকারি আনন্দ মোহন কলেজের ফটকে তালা দিয়েছে এক পক্ষ। পরে ছাত্রাবাস বন্ধ ঘোষণা করে কর্তৃপক্ষ। গতকাল সন্ধ্যায় কলেজ কর্তৃপক্ষ এ নির্দেশ জারি করে। ছাত্রদের রাতেই আর ছাত্রীদের আজ রবিবার সকাল ৮টার মধ্যে হোস্টেল ছাড়তে বলা হয়েছে।

বিজ্ঞাপন

কলেজ কর্তৃপক্ষ ও ছাত্রলীগ সূত্রে জানা গেছে, আনন্দ মোহন কলেজ ছাত্রলীগ শাখা কোন ইউনিটের সঙ্গে যুক্ত থাকবে—এ নিয়ে বিরোধের সূত্রপাত। সম্প্রতি কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগ আনন্দ মোহন কলেজে ছাত্রলীগ জেলা কমিটির অধীনে থাকবে বলে জানায়। কিন্তু মহানগর ছাত্রলীগ এ সিদ্ধান্তের বিপক্ষে অবস্থান নেয়। এ নিয়ে গত দুই দিন ধরে জেলা ও মহানগর ছাত্রলীগের মধ্যে উত্তেজনাকর পরিস্থিতি চলতে থাকে। গতকাল বিকেলে দুই পক্ষে ধাওয়াধাওয়ির ঘটনা ঘটে। এতে ককটেলের বিস্ফোরণও ঘটানো হয়। আলাদা স্থানে সমাবেশ করে দুই পক্ষই নিজেদের শক্তির মহড়া দেয়। একপর্যায়ে আনন্দ মোহন কলেজের ফটকে তালা দেয় এক পক্ষ। পরে কলেজ কর্তৃপক্ষ জরুরি সভা করে ছাত্রাবাস বন্ধ করার সিদ্ধান্ত নেয়।

কলেজের হোস্টেল সুপার কামরুল হাসান বলেন, কলেজে বিপুলসংখ্যক বহিরাগত এসেছিল। শিক্ষার্থীদের নিরাপত্তার কথা বিবেচনা করে ছাত্রাবাস বন্ধের সিদ্ধান্ত হয়েছে।  

এ ব্যাপারে জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি আলামীন বলেন, কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী আনন্দ মোহন কলেজ ছাত্রলীগ জেলার আওতায়ই থাকবে। মহানগর ছাত্রলীগের আহ্বায়ক নওশেল আহমেদ অনি বলেন, মহানগরের ভেতরের সব শাখা মহানগর ছাত্রলীগের আওতায় থাকবে। এটাই স্বাভাবিক। কিন্তু গঠনতন্ত্র না মেনে মহানগরের ভেতর অবস্থিত আনন্দ মোহন কলেজকে জেলার আওতায় নিয়ে যাওয়া হয়েছে। এ সিদ্ধান্ত মানতে পারেনি আনন্দ মোহন কলেজের শিক্ষার্থীরা। তাই তারা জেলা ছাত্রলীগকে আনন্দ মোহন কলেজে রাজনীতি করার বিষয়ে আপত্তি জানিয়েছে।  

কোতোয়ালি থানার ওসি শাহ কামাল বলেন, সারা দিনই পুলিশ পরিস্থিতির ওপর নজর রেখেছে। কলেজ এলাকায় পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে। বর্তমানে পরিস্থিতি শান্ত রয়েছে।



সাতদিনের সেরা