kalerkantho

সোমবার । ২১ অগ্রহায়ণ ১৪২৮। ৬ ডিসেম্বর ২০২১। ১ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪৩

মণিপুরী পল্লীতে রং লেগেছে রাস উৎসবের

মো. মোস্তাফিজুর রহমান, কমলগঞ্জ (মৌলভীবাজার)   

১৭ নভেম্বর, ২০২১ ২০:২৯ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



মণিপুরী পল্লীতে রং লেগেছে রাস উৎসবের

মনিপুরী সম্প্রদায়ের প্রধান ধর্মীয় উৎসব মহারাসলীলা শুক্রবার ১৯ নভেম্বর। এবার অনুষ্ঠিত হবে ১৭৯তম উৎসব। এ উৎসবকে কেন্দ্র করে কমলগঞ্জ উপজেলার মাধবপুর ও আদমপুরের মণিপুরী অধ্যুষিত গ্রামের ঘরে ঘরে এখন রাস উৎসবের রং ফুটেছে। মান্ডবে মান্ডবে প্রস্তুতি শেষ পর্যায়ে। শিল্পীদের হাতে সাদা কাগজে নকশার নিপুণ কারুকাজে মোড়ানো তৈরি মান্ডবগুলো অপরূপ সাজে ফুটে উঠেছে। গোষ্ঠলীলা বা রাখাল নৃত্য বালক বালিকা শিল্পীরা শেষ সময়ে সেরে নিচ্ছেন তালিম। মণিপুরী পল্লীর বাড়ির উঠোনে ছেলেমেয়েরা নাচছে। নাচের প্রশিক্ষণ চলছে। প্রশিক্ষক দেখিয়ে দিচ্ছেন নাচের ভঙ্গিসমূহ। কোনো জায়গায় চলছে রাসনৃত্যের মহড়া। নৃত্যকে নিখুঁত করার ঘষামাজার শেষ পর্যায়ে।

করোনায় গত বছর সীমিত হলেও এবার আরো জাঁকজমকভাবে পালিত হবে এ রাস উৎসব। এদিন দুপুরে উৎসবস্থল মাধবপুরের শিববাজার উন্মুক্ত মঞ্চ প্রাঙ্গণে হবে ১৭৯তম গোষ্ঠলীলা বা রাখাল নৃত্য। রাতে জোড় মান্ডবে রাসের মূল প্রাণ মহারাসলীলা। মাধবপুরের রাসমেলায় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থতি থাকবে পরিকল্পনামন্ত্রী এম এ মান্নান।

আয়োজকরা জানান, রাস উৎসবকে সফল করতে প্রায় মাস খানেক ধরে ছয়টি বাড়িতে রাসনৃত্য এবং রাখালনৃত্যের প্রশিক্ষণ ও মহড়া চলছে। ৩টিতে রাসনৃত্য ও ৩টিতে রাখাল নৃত্য। মাধবপুরে ৩টি জোড় মান্ডবের আওতায় প্রশিক্ষণের ব্যবস্থা করা হয়েছে। একেকটি মান্ডবে আছেন একজন পুরোহিত। সেই পুরোহিতের পরামর্শে একজন প্রশিক্ষক ধর্মীয় বিধিবিধান মতো গোপী বা শিল্পীদের প্রশিক্ষণ দেন। গোপীবেশী শিল্পীদের বয়স ১৬ থেকে ২২ বছর। শুধুমাত্র রাধার বয়স ৫ থেকে ৬ বছর। নৃত্যের প্রতিটি দলে ন্যূনতম ১২ জন অংশ নেয়। একইভাবে রাখাল নৃত্যেরও প্রতিটি দলে ২০ থেকে ২২ জন ১৪ থেকে ১৫ বছর বয়সী বালক অংশ নিয়ে থাকে।


তিলকপুর মান্ডবে কথা হয় শর্মিলী সিনহার সাথে। তিনি জানান, তার ১০ বছর বয়সী ছেলেকে এবার রাখাল নৃত্যে দিয়েছেন। তাই ওস্তাদের কাছ থেকে শেষ তামিল নিচ্ছে তার ছেলে। তিনি আরো জানান, এভাবে মনিপুরী পল্লীর বিভিন্ন স্থানে রাখাল সেজে বালক-বালিকারা প্রশিক্ষণ নিচ্ছে তার শেষ হবে আগের দিন।

মাধবপুর এলাকার শিববাজারে সবচেয়ে বেশি ৩টি মান্ডব জমে উঠে রাস উৎসব। এ ছাড়া আদমপুর বাজারে আরো ২টি মান্ডব  রয়েছে। ৫টি মান্ডব সাজাতে ব্যস্ত শিল্পীরা। মান্ডব ঘিরেই সকল আয়োজন। পাশাপাশি চলছেও আলোকসজ্জাও কাজ।

মাধবপুর মণিপুরী মহারাসলীলা সেবা সংঘের সাধারণ সম্পাদক শ্যাম সিংহ জানান, ইতিমধ্যে রাসোৎসবের সকল প্রস্তুতি সমাপ্ত। সরকার নির্দেশিত স্বাস্থ্যবিধি মেনে এবারের রাসোৎসব অনুষ্ঠিত হবে।

কমলগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী অফিসার আশেকুল হক বলেন, উপজেলা প্রশাসন সকল ধরনের প্রস্তুতি গ্রহণ করেছে। নিরাপত্তা ও সার্বিক পরিস্থিতি নজরদারি করছে।



সাতদিনের সেরা