kalerkantho

বৃহস্পতিবার । ১৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৮। ২ ডিসেম্বর ২০২১। ২৬ রবিউস সানি ১৪৪৩

গৃহবধূকে যৌন হয়রানি, গ্রেপ্তারের পর আ.লীগ নেতা বহিষ্কার

লক্ষ্মীপুর প্রতিনিধি   

৩০ অক্টোবর, ২০২১ ১৫:৪৩ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



গৃহবধূকে যৌন হয়রানি, গ্রেপ্তারের পর আ.লীগ নেতা বহিষ্কার

লক্ষ্মীপুরের কমলনগরে গৃহবধূকে যৌন হয়রানির অভিযোগে গ্রেপ্তার আওয়ামী লীগ নেতা মো. লিটনকে দল থেকে বহিষ্কার করা হয়েছে। শনিবার (৩০ অক্টোবর) দুপুরে উপজেলার চরফলকন ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি আবদুল হাসেম ও সাধারণ সম্পাদক নোমান হোসেন সিরাজ স্বাক্ষরিত সংবাদ বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে বিষয়টি নিশ্চিত করা হয়েছে। লিটন চরফলকন ইউনিয়নের ৬নম্বর ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ছিলেন।

পুলিশ সূত্র জানায়, এক গৃহবধূর স্বামী ইউরোপে যাওয়ার চেষ্টায় ঋণের জন্য কমলনগর ইসলামী ব্যাংক শাখায় যায়। ব্যাংকেই লিটনের সঙ্গে গৃহবধূর দেখা হয়। তখন লিটন তার পরিচয় দিয়ে ছয় লাখ টাকা ঋণ নিয়ে দেওয়ার আশ্বাস দেয়। বিনিময়ে তিনি (গৃহবধূ) যেন তাকে খুশি করে দেয় (কুপ্রস্তাব) এ দাবি করা হয়। ব্যাংকের লক্ষ্মীপুর শাখায় কাগজপত্র জমা দেওয়ার জন্য বৃহস্পতিবার (২৮ অক্টোবর) সকালে লিটন তাকে নিতে আসে। এ সময় তাকে যৌন হয়রানি করা হয়।

বিষয়টি টের পেয়ে গৃহবধূর স্বামী লিটনকে ঘরে আটকে রেখে ৯৯৯ এ কল দেয়। পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে তাকে আটক করে থানায় নিয়ে আসে। ওই রাতেই গৃহবধূ বাদী হয়ে লিটনের বিরুদ্ধে যৌন হয়রানির মামলা দায়ের করেন।

চরফলকন ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক নোমান হোসেন সিরাজ বলেন, 'লিটনের স্বভাব খারাপ। বয়সও কম। দলে দায়িত্ব আসার পর ক্ষমতার অপব্যবহার শুরু করে। যৌন হয়রানি মামলায় গ্রেপ্তার হয়েছেন। দলীয় গঠনতন্ত্র অনুযায়ী তাকে বহিষ্কার করা হয়েছে।'

কমলনগর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোসলেহ উদ্দিন বলেন, স্থানীয়রা লিটনকে আটক করে পুলিশে সৌপর্দ করে। মামলা হলে গ্রেপ্তার দেখিয়ে তাকে শুক্রবার দুপুরে লক্ষ্মীপুর আদালতের মাধ্যমে জেলা কারাগারে পাঠানো হয়েছে।



সাতদিনের সেরা