kalerkantho

বৃহস্পতিবার । ১৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৮। ২ ডিসেম্বর ২০২১। ২৬ রবিউস সানি ১৪৪৩

ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচন

শেষ মুহূর্তে প্রার্থী পরিবর্তন চকরিয়ার বিএমচর ইউনিয়নে

চকরিয়া (কক্সবাজার) প্রতিনিধি   

২৮ অক্টোবর, ২০২১ ২১:১২ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



শেষ মুহূর্তে প্রার্থী পরিবর্তন চকরিয়ার বিএমচর ইউনিয়নে

কক্সবাজারের চকরিয়া উপজেলার ১৮টি ইউনিয়নের মধ্যে আগামী ২৮ নভেম্বর তৃতীয় ধাপে অনুষ্ঠিত হবে উপকূলীয় সাতটিসহ ১০টি ইউনিয়ন পরিষদের নির্বাচন। নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে আওয়ামী লীগ তথা নৌকা প্রতীকের প্রার্থীদের নাম ঘোষণা করা হয় গত মঙ্গলবার। কিন্তু দলের প্রধানের স্বাক্ষরিত মনোনয়ন দেওয়ার চিঠি হাতে না পাওয়ায় ঢাকায় অবস্থান করছিলেন গত কয়েকদিন ধরে।

অবশ্য আজ বৃহস্পতিবার দলের মনোনয়নের চিঠি হাতে দেওয়া হয়েছে প্রার্থীদের। সেই প্রতিক্ষিত চিঠি হাতে পাওয়ার পর অনেক প্রার্থী ইতোমধ্যে এলাকায় ফিরে এসে গণসংবর্ধনায় সিক্ত হয়েছেন। আরো কয়েকজন প্রার্থী আগামীকাল শুক্রবার এলাকায় আসবেন এবং তাদেরকেও গণসংবর্ধনা দেওয়ার প্রস্তুতি রয়েছে স্ব স্ব প্রার্থীদের পক্ষ থেকে।

এদিকে শেষমুহূর্তে এসে আওয়ামী লীগ তথা নৌকা প্রতীকের প্রার্থী পরিবর্তন করা হয়েছে চকরিয়ার মাতামুহুরী সাংগঠনিক উপজেলার অধীন ভেওলা মানিকচর (বিএমচর) ইউনিয়নে। গত মঙ্গলবার কেন্দ্র ঘোষিত প্রার্থী তালিকায় ইউনিয়নের সাধারণ সম্পাদক শহীদুল ইসলাম খোকনের নাম থাকলেও শারিরিক অসুস্থতাজনিত কারণে তিনি নির্বাচনে অংশ নিতে পারছেন না। কেন্দ্রে প্রেরিত তালিকায় তিন নম্বরে থাকা তোফায়েল আহমদও নির্বাচন করতে অনাগ্রহ দেখিয়েছেন। এই অবস্থায় শহীদুল ইসলামকে দলের প্রার্থী করায় তৃণমূল ও সাধারণ মানুষের মাঝে বিরূপ প্রতিক্রিয়ারও সৃষ্টি হয়। এনিয়ে তৃণমূল থেকে দলের হাইকমান্ড পর্যন্ত বিষয়টি নিয়ে আলোচনা হয়। তাই শেষমুহূর্তে দলের মনোনয়ন দেওয়া হয়েছে ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি ও সাবেক চেয়ারম্যান বদিউল আলমকে।

দলের প্রধান শেখ হাসিনার স্বাক্ষরিত মনোনয়নের চিঠি হাতে পাওয়ার পর ভেওলা মানিকচর ইউনিয়ন পরিষদের নির্বাচনে নৌকার প্রার্থী বদিউল আলম বলেন, ‘আমাকেই মনোনয়ন দেওয়ার কথা ছিল। ইউনিয়ন, উপজেলা এবং জেলা থেকে রেজুলেশনসহ এক নাম্বারে আমার নামও প্রেরণ করা হয়েছিল।’

কেন্দ্রের কাছে প্রেরিত তালিকায় নাম থাকা ইউনিয়নের সাধারণ সম্পাদক শহীদুল ইসলাম খোকন বলেন, ‘নির্বাচন করার জন্য আমি মানসিকভাবেও প্রস্তুত ছিলাম না। সাথে দলের আরেক নেতা তোফায়েল আহমদও শারিরিকভাবে অসুস্থ হওয়ায় নির্বাচন করতে অনাগ্রহ। এসব বিষয় কেন্দ্রের কাছে আমরা লিখিতভাবে জানিয়েছি। অবশেষে দলের সম্ভাবনাময়ী প্রার্থী বদিউল আলমকে দলের মনোনয়ন দেওয়া হয়েছে। এতে আমরাও খুশি এবং আমাদের ইউনিয়নে নৌকার প্রার্থী জেতার সম্ভাবনা শতভাগ।’



সাতদিনের সেরা