kalerkantho

শনিবার । ১৯ অগ্রহায়ণ ১৪২৮। ৪ ডিসেম্বর ২০২১। ২৮ রবিউস সানি ১৪৪৩

তৃতীয় ধাপ ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচন

ঈশ্বরদীতে নৌকার মাঝি হতে বিতর্কিতদের দৌড়ঝাঁপ

ঈশ্বরদী (পাবনা) প্রতিনিধি   

১৯ অক্টোবর, ২০২১ ২০:৪৩ | পড়া যাবে ৬ মিনিটে



ঈশ্বরদীতে নৌকার মাঝি হতে বিতর্কিতদের দৌড়ঝাঁপ

তৃতীয় ধাপে ঈশ্বরদী উপজেলার ৭ ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে এবার নৌকার মাঝি হতে চাচ্ছেন চরম বিতর্কিত, দুর্নীতিবাজ কয়েক বর্তমান চেয়ারম্যানসহ পদহীন আওয়ামী লীগ নেতারা। তবে চেয়ারম্যানদের অতীত কর্মকাণ্ড এবং দলীয় পদধারী ও পদহীন নেতাদের দলীয় কর্মকাণ্ড, অনিয়ম, দুর্নীতি, নেতাকর্মীদের সঙ্গে অশালীন আচরণ, সন্ত্রাসী কার্যকলাপসহ বেশ কিছু দিক তুলে ধরে কেন্দ্রে রিপোর্ট প্রেরণ করা হয়েছে। এসব দিক বিবেচনা করে কেন্দ্র যাকে মনোনয়ন দেবে তাঁর পক্ষেই কাজ করা হবে বলে মন্তব্য করেছেন ঈশ্বরদী উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আলহাজ নায়েব আলী বিশ্বাস।

ঈশ্বরদী উপজেলা, ইউনিয়ন, ওয়ার্ড আওয়ামী লীগ ও ইউপি মেম্বারদের সূত্রে জানা যায়, উপজেলার সাঁড়া ইউনিয়ন পরিষদের বর্তমান চেয়ারম্যান আওয়ামী লীগ নেতা এমদাদুল হক রানা সরদারের বিরুদ্ধে বিগত উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে দলীয় নৌকা প্রতীকের বিপক্ষে অবস্থান নেওয়া, বিদ্রোহী প্রার্থী উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক মকলেছুর রহমান মিন্টুর আনারস মার্কা প্রতীকে নির্বাচন করা, নৌকা প্রার্থীর জামানত বাজেয়াপ্ত করার ঘোষণা, একই সঙ্গে দলের ত্যাগী নেতাকর্মীদের অবমূল্যায়ন করে একক আধিপত্য বিস্তার করে নেতাকর্মীদের কোণঠাসা করে রাখা, একক সিদ্ধান্তে নিজস্ব লোকজন নিয়ে দলীয় কার্যক্রম পরিচালনা করার অভিযোগ রয়েছে। এই নিয়ে সাঁড়া ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের মধ্যে বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি হয়েছে।

পাকশী ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে দলীয় মনোনয়ন প্রত্যাশী সাইফুজ্জামান পিন্টু। ২০ বছর আগে ইউনিয়ন আওয়ামী যুবলীগের সভাপতি ছিলেন। সভাপতি পদ হারিয়ে আওয়ামী লীগের রাজনীতি থেকে নিষ্কৃয় তিনি। পিন্টুর বিরুদ্ধে এলাকার অসহায় বীর মুক্তিযোদ্ধা আনিসুর রহমান আমছুরকে বেদম প্রহার করার অভিযোগ রয়েছে। সেই প্রহারে অসুস্থ হয়ে মৃত্যুবরণ করেন তিনি।

ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক প্রয়াত বীর মুক্তিযোদ্ধা মুস্তাফিজুর রহমান সেলিমকে কয়েক দফা শারিরিকভাবে লাঞ্ছিত করা, আতঁতায়ীদের গুলিতে বীর মুক্তিযোদ্ধা সেলিম নিহত হওয়ার পর অবাঞ্চিত নানা ভূমিকার পালন করা, রাজশাহী বিভাগের শ্রেষ্ঠ রূপপুর বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আনিসুর রহমানকে বিদ্যালয় চলাকালে ছাত্রীদের সামনে মারপিট ও বিদ্যালয় কক্ষ ভাঙচুর করে দ্রুত বিচার আইনে মামলার আসামি হওয়া, বীর মুক্তিযোদ্ধা সেলিম হত্যার অন্যতম স্বাক্ষী জাহাঙ্গীর আলম কেরুকে কয়েক দফা মারপিট করা, পাকশীর রাজনীতিতে বিতর্কিত ভূমিকা রেখে বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি করারসহ অসংখ্য অভিযোগ মনোনয়ন প্রত্যাশী সাইফুজ্জামান পিন্টুর বিরুদ্ধে রয়েছে।

স্থানীয় আওয়ামী লীগের রাজনীতিতে সাইফুজ্জামান পিন্টুর অবস্থান না থাকলেও ইউপি নির্বাচনের মনোনয়ন বোর্ডে থাকা এক আত্মীয়ের মাধ্যমে দলীয় নৌকা প্রতীকের মনোনয়ন পাওয়ার আশায় প্রার্থী হয়েছেন বলে স্থানীয় আওয়ামী লীগ সূত্রে তথ্যটি নিশ্চিত হওয়া গেছে। এবার এই ইউনিয়ন থেকে আরো কয়েকজন দুর্নীতিবাজ আওয়ামী লীগ নেতা দলীয় নৌকা প্রতীকে মনোনয়ন লাভের চেষ্টা করছেন।

সলিমপুর ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে বর্তমান চেয়ারম্যান আব্দুল মজিদ বাবলু মালিথা নৌকা প্রতীকে মনোনয়ন প্রত্যাশী। তাঁর বিরুদ্ধে বঙ্গবন্ধুর জন্মদিন উপলক্ষে কেরাম বোর্ডের ওপর রেখে কেক কাটা, নিজ বাড়িতে গ্রেপ্তার তালিকাভুক্ত জয়পুর হাট জেলা জামায়াত ইসলামের সেক্রেটারি মাওলানা নজরুল ইসলামকে আশ্রয় দিয়ে গোপন রাখা, স্বেচ্ছারিতা, অনিয়ম, দুর্নীতি ও আদায়কৃত ইউপি করসহ বিভিন্ন খাতের ৩৪ লাখ টাকা আত্মসাতের অভিযোগ রয়েছে। ইউপি মেম্বারগণ চেয়ারম্যান বাবলু মালিথার প্রতি অনাস্থা এনে জেলা প্রশাসক, ইউএনও স্থানীয় সরকার মন্ত্রণালয়সহ বিভিন্ন দপ্তরে লিখিত অভিযোগ ও মানববন্ধন করেন। এসব কারণে স্থানীয় আওয়ামী লীগের রাজনীতিতে চরম বিতর্কিত ব্যক্তি হিসেবে আব্দুল মজিদ বাবলু মালিথার পরিচয় রয়েছে।

সলিমপুর ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে দলীয় নৌকা প্রতীকে মনোনয়ন প্রত্যাশা করছেন তৌফিকুজ্জামান রতন মহলদার। তিনি বিগত উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে দলীয় নৌকা প্রতীকের বিরুদ্ধে বিদ্রোহী উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মকলেছুর রহমান মিন্টুর আনারস প্রতীকের পক্ষে নির্বাচন করেন। ভোটের দিন উপজেলার মানিকনগর বালিকা উচ্চ ও সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় ভোট কেন্দ্রে বিদ্রোহী প্রার্থীর আনারস প্রতীকের পক্ষ নৌকার সমর্থকদের মারপিট করে নৌকার ৫ কর্মীকে আহত করার অভিযোগ রয়েছে। স্থানীয় শীর্ষ এক নেতাকে মনোনয়নের জন্য প্রায় অর্ধকোটি টাকা প্রদান করে মনোনয়ন নিচ্ছেন বলেও এলাকায় প্রচার চালিয়েছেন নৌকার প্রতীক প্রার্থী রতন মহলদার।

সাহাপুর ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে বর্তমান চেয়ারম্যান মতলেবুর রহমান মিনহাজ নৌকার মনোনয়ন প্রত্যাশী। তাঁর বিরুদ্ধেও নানা রকম অনিয়ম, অব্যবস্থাপনা ও দুর্নীতির অভিযোগ রয়েছে। পরিষদের মেম্বারদের সম্মানীভাতা, প্রকল্পের টাকা প্রদান না করে আত্মসাত করা, সদস্য ও স্থানীয় আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীদের সঙ্গে অশালীন আচরণ করার অভিযোগ রয়েছে। এমনকি চেয়ারম্যান মতলেবুর রহমান মিনহাজের প্রতি অনাস্থা প্রস্তাব এনে ইউপি সদস্যরা ইউএনও, জেলা প্রশাসক, স্থানীয় সরকার মন্ত্রণালয়সহ বিভিন্ন দপ্তরে অভিযোগ দায়ের করেন। এসব বিষয় নিয়ে স্থানীয় আওয়ামী লীগের মধ্যে চেয়ারম্যান মিনহাজ ফকিরের অবস্থান নেতৃত্বশূন্য ও বেশ সমালোচিত।

দাশুড়িয়া ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে বর্তমান চেয়ারম্যান বকুল সরদার মনোনয়ন প্রত্যাশিত। ঈশ্বরদী শহরের তৎকালীন প্রভাবশালী এক নেতার নিকট আত্মীয় হওয়ার সুবাদে ২০১৬ সালে দলীয় মনোনয়ন নৌকা প্রতীক পেয়ে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হন। বর্তমানে  তাঁর বিরুদ্ধে স্থানীয় আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীদের সঙ্গে অশালীন আচরণ, স্বেচ্ছারিতা, নানা রকম আর্থিক দুর্নীতির অভিযোগ রয়েছে। এসব কারণে স্থানীয় আওয়ামী লীগের রাজনীতিতে তার বিরুদ্ধে একাধিক প্রার্থী মনোনয়ন প্রত্যাশা করছেন।

এ ছাড়া লক্ষ্মীকুন্ডা ও মুলাডুলি ইউনিয়নেও দলীয় নৌকা প্রতীকের বিপক্ষে আনারস মার্কা প্রতীকে নির্বাচন করা একাধিক বিতর্কিত ব্যক্তি, একাধিক মামলার আসামিরা দলীয় নৌকা প্রতীকে মনোনয়ন প্রত্যাশা করে ফরম উত্তোলন করেছেন বলে জানা গেছে।

বিভিন্ন ইউনিয়নের প্রার্থীদের বিষয়ে জানতে সদ্য নির্বাচিত ঈশ্বরদী উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান বীর মুক্তিযোদ্ধা আলহাজ নায়েব আলী বিশ্বাস কালের কণ্ঠকে জানান, আসন্ন নির্বাচনে আওয়ামী লীগ থেকে নৌকা প্রতীকে মনোনয়ন প্রত্যাশীতদের বিষয়ে উপজেলা আওয়ামী লীগের পক্ষ থেকে তালিকা প্রেরণ করা হয়েছে। তালিকার সঙ্গে প্রার্থীদের বিভিন্ন সময়ে দলে থাকা রাজনৈতিক পরিচয়ে পদবী, রাজনৈতিক ভূমিকা, কর্মকাণ্ড তুলে ধরে কেন্দ্রের নিকট মতামত প্রদান করা হয়েছে। এসব মতামতের পরেও যদি কেন্দ্র বিতর্কিত ব্যক্তিদের মনোনয়ন দেয় তাহলে আমরা তার পক্ষেই নির্বাচন করবো।



সাতদিনের সেরা