kalerkantho

শনিবার । ১৯ অগ্রহায়ণ ১৪২৮। ৪ ডিসেম্বর ২০২১। ২৮ রবিউস সানি ১৪৪৩

রোহিঙ্গা নেতা মহিব উল্লাহ হত্যা : ইলিয়াছের স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি

বিশেষ প্রতিনিধি, কক্সবাজার   

১০ অক্টোবর, ২০২১ ১৯:২৬ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



রোহিঙ্গা নেতা মহিব উল্লাহ হত্যা : ইলিয়াছের স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি

কক্সবাজারের উখিয়ার কুতুপালং শিবিরের চাঞ্চল্যকর রোহিঙ্গা নেতা মহিব উল্লাহ হত্যা মামলায় গ্রেপ্তার হওয়া আরসাগ্রুপের সদস্য মোহাম্মদ ইলিয়াছ আদালতে ১৬৪ ধারায় স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছেন। আজ রবিবার দুপুরে বিষয়টি স্থানীয় সংবাদকর্মীদের কাছে নিশ্চিত করে কক্সবাজারের পুলিশ সুপার মো: হাসানুজ্জামান জানিয়েছেন, গতকাল শনিবার সন্ধ্যার পর আদালতে তার স্বীকারোক্তি মূলক জবানবন্দি রেকর্ড করা হয়।

শিবিরের সাধারণ রোহিঙ্গারা জানিয়েছেন, স্বীকারোক্তি মূলক জবানবন্দি প্রদানকারি ইলিয়াছ কুতুপালং ৬ নম্বর শিবিরের একজন মাঝি (শিবিরের দায়িত্বপালনকারি রোহিঙ্গা নেতা) ছিলেন। ইলিয়াছ রোহিঙ্গাদের সশস্ত্র সংগঠন আরাকান রোহিঙ্গা স্যালভেশন আর্মির (আরসা) একজন সদস্য। সে পুরো শিবির জুড়ে দীর্ঘদিন ধরে অরাজকতা চালিয়ে আসছিল বলে জানা গেছে।

পুলিশ সুপার জানান, রোহিঙ্গা নেতা মহিব উল্লাহ হত্যা মামলায় এই পর্যন্ত ৫জন রোহিঙ্গা গ্রেপ্তার হয়েছেন। তাদের আদালতের মাধ্যমে প্রত্যেককে ৩ দিন করে রিম্যান্ড মন্জুর করে জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়। জিজ্ঞাসাবাদ শেষে গতকাল শনিবার তিনদিনের রিম্যান্ড শেষে মোহাম্মদ ইলিয়াছকে আদালতে আনা হয়। পরে তিনি কক্সবাজারের চিফ জুডিসিয়াল ম্যাজিষ্ট্রেট আদালতের বিচারক মো. হেলাল উদ্দিনের কাছে ১৬৪ ধারায় জবানবন্দি প্রদান করেন। 

এতে হত্যাকান্ডের বিস্তারিত ঘটনার কথা তিনি অকপটে স্বীকার করেন বলে জানা গেছে। তবে পুলিশ সুপার এ ব্যাপারে কোন তথ্য প্রকাশ করেন নি।

এর আগে গত ৩ অক্টোবর দুপুরে ১৪-এপিবিএন সদস্যরা উখিয়ার কুতুপালং রোহিঙ্গা ক্যাম্প-৫ এ অভিযান চালিয়ে রোহিঙ্গা সন্ত্রাসী মো. ইলিয়াসকে (৩৫) গ্রেপ্তার করে উখিয়া থানায় সোপর্দ করে। পুলিশ ১ অক্টোবর দুপুরে উখিয়ার কুতুপালং ক্যাম্প-৬ থেকে মোহম্মদ সেলিম প্রকাশ লম্বা সেলিমকে। ২ অক্টোবর ভোরে কুতুপালং রোহিঙ্গা ক্যাম্প থেকে জিয়াউর রহমান  ও আবদুস সালামকে ১৪ এপিবিএন সদস্যরা গ্রেপ্তার করে উখিয়া থানায় হস্তান্তর করে। একইদিন বিকেলে উখিয়া থানা পুলিশ শওকত উল্লাহ নামে আরেকজন রোহিঙ্গাকে কুতুপালং ক্যাম্প থেকে গ্রেপ্তার করে।

উল্লেখ্য,গত  ২৯ সেপ্টেম্বর রাত সাড়ে ৮টার দিকে উখিয়া কুতুপালং লম্বাশিয়া এলাকার রোহিঙ্গা ক্যাম্পে আরাকান রোহিঙ্গা সোসাইটি ফর পীচ ফর হিউম্যান রাইটস (এআরএসপিএইচ) নামের নিজ সংগঠনের কার্যালয়ে অবস্থানকালে সন্ত্রাসীদের গুলিতে নিহত হন রোহিঙ্গাদের শীর্ষ নেতা মহিব উল্লাহ। এ ঘটনায় ৩০ সেপ্টেম্বর রাতে অজ্ঞাতনামা আসামী দেখিয়ে উখিয়া থানায় ৩০২/৩৪ ধারায় মামলা করেন তার ছোট ভাই হাবিব উল্লাহ।



সাতদিনের সেরা