kalerkantho

সোমবার । ৯ কার্তিক ১৪২৮। ২৫ অক্টোবর ২০২১। ১৭ রবিউল আউয়াল ১৪৪৩

শেখ হাসিনা বাংলাদেশের মুক্তিদাতা : আসাদুজ্জামান নূর

নীলফামারী প্রতিনিধি   

২৮ সেপ্টেম্বর, ২০২১ ১৯:১৮ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



শেখ হাসিনা বাংলাদেশের মুক্তিদাতা : আসাদুজ্জামান নূর

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ৭৫তম জন্মবার্ষিকীর শুভেচ্ছা ও তাঁর দীর্ঘ জীবন কামনা করে নীলফামারী-২ আসনের সংসদ সদস্য আসাদুজ্জামান নূর বলেছেন, 'শেখ হাসিনা শুধু বঙ্গবন্ধুর কন্যা নন, তিনি শুধু মাননীয় প্রধানমন্ত্রী নন, তিনি শুধু আওয়ামী লীগের সভাপতি নন, তিনি বাংলাদেশের মুক্তিদাতা।'

নীলফামারীতে মঙ্গলবার সন্ধ্যায় জেলা শিল্পকলা একাডেমি মিলনায়তনে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ৭৫তম জন্মবার্ষিকীর উপলক্ষে সদর উপজেলা আওয়ামী লীগ আয়োজিত আলোচনা সভা ও অচ্ছল মানুষের মাঝে সহায়তা বিতরণ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় তিনি একথা বলেন।

তিনি বলেন, জাতীর পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ১৯৭১ সালের ৭ই মার্চে বলেছিলেন ‘এবারের সংগ্রাম আমাদের মুক্তির সংগ্রাম, এবারের সংগ্রাম স্বাধীনতার সংগ্রাম।’ বঙ্গবন্ধু স্বাধীনতা দিয়ে গেছেন কিন্তু বাংলাদেশের মানুষকে মুক্তি দিয়ে যেতে পারেননি। ৭৫ এ স্বাধীনতা বিরোধী শক্তি তাঁকে স্বপরিবারে হত্যা করেছিলেন। ১৯৮১ সালে স্বদেশ প্রত্যাবর্তনের পর তিনি (প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা) আরেক ধ্বংসস্তূপ থেকে বাংলাদেশকে উদ্ধারের কাজ শুরু করেছিলেন। একদিকে দলকে সংগঠিত করা, অন্যদিকে গণতন্ত্র পুঃনরুদ্ধার করে বাংলাদেশকে মুক্তিযুদ্ধের চেতনায় পরিচালিত করা। দীর্ঘ সংগ্রাম, ত্যাগ এবং বহুবার মৃত্যুর মুখে দাঁড়িয়ে তিনি অবিচল দৃঢ় নেতৃত্ব দিয়েছেন দলকে। দেশ আজ এগিয়ে চলেছে, আজ বাংলার মানুষের মুখে হাঁসি ফুটেছে, বাংলাদেশ আজ ক্ষুধা, শিক্ষাহীনতা, চিকিৎসাহীনতা থেকে মুক্তি পেয়েছে। আমাদের দৃঢ় প্রত্যয় শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বিশ্বসভায় মাথা  উঁচু করে দাঁড়াবে বাংলাদেশ। জয় আমাদের অনিবার্য।'

সদর উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আবুজার রহমানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সভায় প্রধান আলোচক হিসেবে বক্তব্য দেন, বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক মো. সাখাওয়াত হোসেন শফিক। অন্যান্যের মধ্যে বক্তৃতা করেন জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মো. মমতাজুল হক, জেলা কৃষকলীগের সভাপতি অক্ষয় কুমার রায়, সদর উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মো. ওয়াদুদ রহমান, পৌর আওয়ামী লীগের সভাপতি মসফিকুল ইসলাম, সাধারণ সম্পাদক আরিফ হোসেন, জেলা যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক শাহিদ মাহমুদ প্রমুখ।

আলোচনা শেষে জেলা সদরের ৭৫ জন দরিদ্র অসহায় নারীর মাঝে সহায়তা বিতরণ, ৭৫ জন সুবিধা বঞ্চিত শিশুর মাঝে স্কুল ব্যাগ বিতরণ, “উন্নত বাংলাদেশ গড়ার অগ্রযাত্রায় জননেত্রী শেখ হাসিনার অবদান” শীর্ষক বক্তব্য প্রতিযোগিতায় বিজয়ী ৭৫ জন প্রতিযোগীর মাঝে পুরস্কার বিতরণ করা হয়। এর আগে, কর্মসূচির অংশ হিসেবে ৭৫টি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান এবং ৭৫টি মন্দির মসজিদে বৃক্ষরোপণ এবং ইটাখোলা ইউনিয়নে নিজস্ব জমিতে তিনতলা বিশিষ্ঠ দলীয় কার্যালয়ের ভিত্তি প্রস্তর স্থাপন করা হয়।

সদর উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওয়াদুদ রহমান বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ৭৫ তম জন্মবার্ষিকীকে বিশেষ গুরুত্ব দিয়ে প্লাটিনাম জন্মজয়ন্তীর কর্মসূচি সাজিয়েছিলাম। স্থানীয় সাংসদ আসাদুজ্জামান নূর ভাইয়ের পরামর্শ এবং দিক নির্দেশনায় এ কর্মসুচি হাতে নেয়া হয়। 



সাতদিনের সেরা