kalerkantho

বৃহস্পতিবার । ১২ কার্তিক ১৪২৮। ২৮ অক্টোবর ২০২১। ২০ রবিউল আউয়াল ১৪৪৩

১৪ ট্রলার ও ১৭ জেলের জরিমানা

শরণখোলায় বিষ পার্টির তিন সদস্য কারাগারে

মহিদুল ইসলাম, শরণখোলা (বাগেরহাট)   

২৫ সেপ্টেম্বর, ২০২১ ১৯:১৪ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



শরণখোলায় বিষ পার্টির তিন সদস্য কারাগারে

পূর্ব সুন্দরবনে পাসবিহীন এবং বিষ প্রয়োগ করে মাছ ধরার অপরাধে ২০ জেলেকে আটক করেছে বন বিভাগ। আটক জেলেদের কাছ থেকে ১৪টি ইঞ্জিনচালিত ট্রলার, একটি ডিঙি নৌকা, বিষ দিয়ে ধরা ২০ কেজি চিংড়ি মাছ এবং এক বোতল রিফকড কীটনাশক জব্দ করা হয়েছে।

শুক্র ও শনিবার সকাল এবং দুপুরে শরণখোলা রেঞ্জের কটকা অভয়ারণ্য, সুপতি ও চান্দেশ্বর এলাকায় অভিযান চালিয়ে জেলেদের আটক করা হয়।

বন বিভাগ জানিয়েছে, আটক জেলেদের মধ্যে বিষ পার্টির তিন সদস্য সাজেদুল ইসলাম, রিপন হাওলাদার ও জাফর তালুকদারকে বন আইনে মামলা দিয়ে আদালতের মাধ্যমে জেলা কারাগারে পাঠানো হয়েছে। এই তিন জেলের বাড়ি বাগেরহাটের শরণখোলা উপজেলার সাউথখালী ইউনিয়নের চালিতাবুনিয়া ও খুড়িয়াখালী গ্রামে। বাকি ১৭ জেলে ও ১৪ ট্রলারে জরিমানা আদায় করা হয়েছে।

পূর্ব সুন্দরবনের শরণখোলা রেঞ্জ কর্মকর্তা (এসিএফ) মো. শামসুল আরেফীন জানান, শনিবার (২৫ সেপ্টেম্বর) ভোররাতে কটকা অভয়ারণ্য এলাকায় অনুপ্রবেশ এবং পাস না থাকার অপরাধে ৮টি ফিশিং ট্রলারসহ পাথরঘাটা এলাকার ৮ জেলেকে আটক করে বনরক্ষীরা। এ সময় ট্রলারে থাকা আরো ১৫-১৬ জন জেলে লাফিয়ে বনের মধ্যে পালিয়ে যায়। তাদের খুঁজে বের করা চেষ্টা চলছে। আটক জেলে ও ট্রলরের বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস্থা গ্রহণের প্রক্রিয়া চলছে।

অপরদিকে, শুক্রবার সকাল ৮টার দিকে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে অভিযান চালিয়ে সুপতি স্টেশনের আওতাধীন বনের একটি খালে বিষ দিয়ে মাছ ধরার সময় তিন জেলেকে হাতেনাতে আটক করে স্মার্ট টিমের সদস্যরা। এরা শরণখোলা বাজারের মৎস্য ব্যবসায়ী জালাল মোল্লার নৌকার জেলে। তাদের কাছ থেকে একটি ডিঙি নৌকা, ২০ কেজি চিংড়ি ও এক বোতল কীটনাশক উদ্ধার করা হয়।

এ ছাড়া, বনবিভাগের পাস না নিয়ে একইদিন দুপুরে চান্দশ্বর টহল ফাঁড়ির দরজার খালে অবৈধভাবে মাছ ধরার সময় ৬টি ট্রলারসহ পাথরঘাটার টেংরা এলাকার ৯ জেলেকে আটক করা হয়। এই ৯ জেলেকে বন আইনের ৬৮ ধারা মোতাবেক ১ লাখ ৬০ হাজার টাকা জরিমানা আদায় করে ছেড়ে দেওয়া হয়।

এসিএফ শামসুল আরেফীন বলেন, বেশির ভাগ অভিযান আমি নিজে নেতৃত্ব দিয়ে পরিচালনা করে থাকি। বনে কেউ অবৈধভাবে সুবিধা গ্রহণ করতে পারবে না। সব ধরনের অপরাধ দমনে সচেষ্ট রয়েছে বন বিভাগ।



সাতদিনের সেরা