kalerkantho

শনিবার । ৩১ আশ্বিন ১৪২৮। ১৬ অক্টোবর ২০২১। ৮ রবিউল আউয়াল ১৪৪৩

শিশুকে ঘুম থেকে ডেকে নিয়ে চোর অপবাদে মারধর, কুপিয়ে জখম

মোল্লাহাট (বাগেরহাট) প্রতিনিধি   

২৫ সেপ্টেম্বর, ২০২১ ১৪:২৩ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



শিশুকে ঘুম থেকে ডেকে নিয়ে চোর অপবাদে মারধর, কুপিয়ে জখম

বাগেরহাটের মোল্লাহাটে তকু শিকদার নামে এক ব্যক্তির বিরুদ্ধে নয়ন মুন্সি (১৩) নামের ঘুমন্ত এক শিশুকে ডেকে নিয়ে চোর অপবাদ দিয়ে এলোপাতাড়ি মারধর ও কুপিয়ে যখম করার অভিযোগ পাওয়া গেছে। গতকাল শুক্রবার ভোর ৬টায় উপজেলার দারিয়ালা গ্রামে ন্যাক্কারজনক এ ঘটনা ঘটে। নির্মম নির্যাতনের এ ঘটনায় আহত শিশুকে মোল্লাহাট উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে। নয়ন মুন্সি দারিয়ালা গ্রামের সেলিম মুন্সির ছেলে।

নির্যাতনের শিকার নয়ন মুন্সির মা রেনিসা জানান, তাদের প্রতিবেশী দারিয়ালা গ্রামের রুহুল শিকদারের ছেলে তকু শিকদার মেহেদী নামে অপর এক শিশুর মাধ্যমে শুক্রবার ভোর ৬টার দিকে ঘুমন্ত নয়নকে ডেকে নেন। এরপর তাকে মাছ ধরার জাল চুরির অপবাদ দিয়ে এলাপাতাড়ি মারধর করেন। অত্যাচার-নির্যাতনের একপর্যায়ে তাকে কুপিয়ে জখম করা হয়। এ ঘটনার বিচার দাবি করে ভিকটিমের মা আরও বলেন, তার ছেলে কিছুটা সুস্থ হলে থানায় অভিযোগ করবেন।

এ বিষয়ে সাক্ষাৎকারের জন্য সরেজমিনে গেলে তকু শিকদারকে বাড়ি না পাওয়ায় তার স্ত্রী বলেন, চোরের সাথি কেউ হয় না, আপনারাও না। জাল চুরি করছে তাই মারছেম আর কাচি দিয়ে বাড়ৈছে ও ঘেটৈছে (আঘাত করছে)। এক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, পাশের বাড়ির মেহেদীর কাছে শুনেছেন যে, তাদের জাল নয়ন চুরি করছে, যার দাম প্রায় দেড়শত টাকা।

মেহেদীর মা জানান, তার ছেলেকে দিয়ে নয়নকে ডেকে এনে কোন কথা না শুনেই তাকে মারধর শুরু করেন। নয়ন তার কথা বলতে চেয়েছিল, কিন্তু তফু তা শুনে মারধর করাসহ বার বার কাচি দিয়ে আঘাত করেছেন।

মোল্লাহাট থানা অফিসার ইনচার্জ(ওসি) সোমেন দাশ জানান, এ ঘটনায় লিখিত কোনো অভিযোগ পাইনি। অভিযোগ পেলে তদন্ত সাপেক্ষে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করবো।



সাতদিনের সেরা