kalerkantho

মঙ্গলবার । ৩ কার্তিক ১৪২৮। ১৯ অক্টোবর ২০২১। ১১ রবিউল আউয়াল ১৪৪৩

মাদক কেনার টাকা না পেয়ে যুবকের আত্মহত্যা

শেরপুর (বগুড়া) প্রতিনিধি   

১৭ সেপ্টেম্বর, ২০২১ ১৩:১৮ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



মাদক কেনার টাকা না পেয়ে যুবকের আত্মহত্যা

মাদক কেনার টাকা না পেয়ে বগুড়ার শেরপুরে গলায় ফাঁস দিয়ে আব্দুস সালাম (৩৩) নামের এক যুবক আত্মহত্যা করেছেন। গতকাল বৃহস্পতিবার (১৬ সেপ্টেম্বর) রাতে উপজেলার গাড়ীদহ ইউনিয়নের বড় ফুলবাড়ী চক পাথালিয়া গ্রামস্থ বসতবাড়ির শয়নকক্ষ থেকে তার ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার হয়। নিহত আব্দুস সালাম ওই গ্রামের আয়নাল হক প্রামাণিকের ছেলে।

স্থানীয় এলাকাবাসী জানান, যুবক আব্দুস সালাম মাদকাসক্ত ছিলেন। তিনি বৃহস্পতিবার দুপুরে তার মায়ের কাছে ১০০টাকা চান। কিন্তু তার মা টাকা না দেওয়ায় ওই যুবক অভিমান করে নিজ শয়নকক্ষর তীরের সঙ্গে রশি লাগিয়ে গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেন। পরবর্তীতে ঘরের দরজা-জানালা বন্ধ দেখে সন্দেহ হলে তাকে একাধিকবার ডাকাডাকি করা হয়। কিন্তু কোনো সাড়াশব্দ না পাওয়ায় দরজা ভেঙে ভেতরে গিয়ে তাকে ঝুলন্ত অবস্থায় দেখতে পেয়ে থানায় সংবাদ দেওয়া হয়। এরপর পুলিশ ঘটনাস্থলে এসে নিহতের লাশ উদ্ধার করেন।

আব্দুস সালামের বাবা আয়নাল হক বলেন, সালাম নেশা করতো। নেশার টাকার জন্য প্রায়দিনই বাড়িতে ঝগড়া বিবাদ ও ভাঙচুর চালাতো। এরই ধারাবাহিকতায় বৃহস্পতিবার মাদক কেনার জন্যই মায়ের কাছে টাকা দাবি করে বসেন। কিন্তু ওর মা তাকে টাকা দেয়নি। আর এই নেশার টাকা না পেয়েই ক্ষোভে আত্মহত্যা করে থাকতে পারেন বলে ধারণা করছেন তিনি।

জানতে চাইলে শেরপুর থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) সাচ্চু বিশ্বাস এ প্রসঙ্গে বলেন, আব্দুস সালাম নামের ওই যুবক মাদকাসক্ত ছিলেন বলে নিহতের পরিবার ও এলাকাবাসীর সঙ্গে কথা বলে জানতে পেরেছি। তাই নেশার টাকা না পেয়েই গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেছে বলে মোটামুটি নিশ্চিত হই। এছাড়া পরিবারের কারো কোনো অভিযোগও নেই। এই কারণে লাশ উদ্ধার ও সুরতহাল প্রতিবেদন তৈরি করা হলেও দাফনের জন্য অনুমতি দেওয়া হয়েছে। এ ঘটনায় থানায় একটি অপমৃত্যু মামলা দায়ের হয়েছে বলেও জানান তিনি।



সাতদিনের সেরা