kalerkantho

বুধবার । ৪ কার্তিক ১৪২৮। ২০ অক্টোবর ২০২১। ১২ রবিউল আউয়াল ১৪৪৩

অগ্নিদগ্ধ গৃহবধূ, ৮ ঘণ্টা পর চিরনিদ্রায়

হাওরাঞ্চল প্রতিনিধি   

১৬ সেপ্টেম্বর, ২০২১ ১২:৪৩ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



অগ্নিদগ্ধ গৃহবধূ, ৮ ঘণ্টা পর চিরনিদ্রায়

সুনামগঞ্জের ধর্মপাশায় চুলার আগুনে পুড়ে দগ্ধ হওয়ার প্রায় ৮ ঘণ্টা পর চিকিৎসাধীন অবস্থায় শুভা আক্তার (৩৫) নামে এক গৃহবধূর মৃত্যু হয়েছে। গতকাল বুধবার দুপুর ১২টার দিকে তিনি বসতঘর লাগোয়া রান্নাঘরে লাকড়ির আগুনে দুপুরে রান্না করতে গিয়ে অগ্নিদগ্ধ হন। পরে ওই দিন রাত ৮টার দিকে পাশের নেত্রকোনা আধুনিক সদর হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়।

নিহত গৃহবধূ শুভা আক্তার ধর্মপাশা গ্রামের আলী ইউনুসের স্ত্রী। তিনি দীর্ঘদিন ধরে মৃগী রোগে ভুগছিলেন।
নিহতের পরিবার ও হাসপাতাল সূত্রে জানা গেছে, গৃহবধূ শুভা আক্তার বুধবার দুপুর ১২টার দিকে রান্নাঘরে লাকড়ির আগুনে দুপুরের খাবার রান্না করছিলেন। এ সময় তার মৃগী রোগের সমস্যা দেখা দিলে তিনি চুলার আগুনে পড়ে গিয়ে দগ্ধ হন।

এ বিষয়টি তার আট বছর বয়সী একমাত্র ছেলে আলী আহম্মেদের নজরে পড়ে এবং সঙ্গে সঙ্গে সে চিৎকার করতে থাকে। তার চিৎকার শুনে প্রতিবেশীরা ছুটে এসে ঘটনাস্থল থেকে অগ্নিদগ্ধ ওই গৃহবধূকে উদ্ধার করে প্রথমে ধর্মপাশা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে ভর্তি করান। পরে সেখানে তার অবস্থার অবনতি দেখে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাৎক্ষণিকভাবে তাকে উন্নত চিকিৎসার জন্য ময়মনসিংহ মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের বার্ন ইউনিটে স্থানান্তরিত করেন। পরে ময়মনসিংহে যাওয়ার পথে গৃহবধূ শুভা আক্তারের শারীরিক অবস্থার আরো অবনতি হলে তাকে জরুরি ভিত্তিতে নেত্রকোনা আধুনিক সদর হাসপাতালে নিয়ে ভর্তি করা হয়। সেখানে প্রায় আট ঘণ্টা চিকিৎসাধীন থাকার পর বুধবার রাত ৮টার দিকে তার মৃত্যু হয়।



সাতদিনের সেরা