kalerkantho

রবিবার । ৪ আশ্বিন ১৪২৮। ১৯ সেপ্টেম্বর ২০২১। ১১ সফর ১৪৪৩

ডাকাতি ছেড়ে দেওয়া যুবককে কোপাল দুর্বৃ্ত্তরা!

রাজাপুর (ঝালকাঠি) প্রতিনিধি   

৬ সেপ্টেম্বর, ২০২১ ১১:৩৪ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



ডাকাতি ছেড়ে দেওয়া যুবককে কোপাল দুর্বৃ্ত্তরা!

ডাকাতি ছাড়ার ঘোষণা দিয়ে গত ১৫ই জানুয়ারি সংবাদ সম্মেলন করেছিলেন আবুল।

ঝালকাঠির রাজাপুরে ডাকাতি ছেড়ে দিয়ে সুস্থ জীবনে ফিরে আসার এক বছর না যেতেই দুর্বৃত্তদের হামলার শিকার হয়েছেন আবুল হোসেন ওরফে আবু তালুকদার (৩২) নামে এক যুবক। এলোপাথাড়ি কুপিয়ে গুরুতর জখম করা হয়েছে তাকে। রবিবার (০৫ সেপ্টেম্বর) রাতে উপজেলার নৈকাঠীর বিড়ালজুড়ি সেতু এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

আবুল হোসেন উপজেলার সাতুরিয়া ইউনিয়নের আনসার আলী তালুকদারের ছেলে। তার বিরুদ্ধে ডাকাতি ও অস্ত্র আইনে একাধিক মামলা রয়েছে। হামলায় আবুলের এক হাত ও এক পা শরীর থেকে প্রায় বিচ্ছিন্ন হয়ে গেছে। গুরুতর আহত অবস্থায় তাকে রাজধানীর পঙ্গু হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

স্থানীয়রা জানায়, সবশেষ ২০২০ সালের আগস্ট মাসে আবুকে অস্ত্রসহ গ্রেপ্তার করে র‍্যাব। সেই মামলায় জামিনে বেরিয়ে ‘ডাকাত’ নাম ঘোঁচাতে ও সুস্থ জীবনে ফেরার আশায় পুলিশের সহায়তা চান ও চলতি বছরের ১৫ই জানুয়ারী রাজাপুর প্রেসক্লাবে সংবাদ সম্মেলন করেন।

রাজাপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি)মো. শহিদুল ইসলাম বলেন, ‘জেল থেকে বের হয়ে ডাকাতি ছাড়ার ঘোষণা দিয়ে সংবাদ সম্মেলন করেছিলেন আবুল। এরপর গ্রামে কৃষিকাজ করতেন বলে জানা গেছে। স্থানীয় জনপ্রতিনিধি ও পুলিশের পক্ষ থেকেও তাকে সহায়তার আশ্বাস দেওয়া হয়েছিল।’

তিনি আরো বলেন, বিড়ালঝুড়ি এলাকার লোকজন রবিবার রাতে থানায় খবর দেয় যে, সেতুর কাছে এক ব্যক্তি রক্তাক্ত অবস্থায় পড়ে আছেন। পরে পুলিশ গিয়ে তাকে উদ্ধার করে প্রথমে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে আনে। সেখানে অবস্থার অবনতি হলে পাঠানো হয় বরিশালের শের-ই-বাংলা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে। পরে আজ সোমবার ভোরে তাকে ঢাকায় পাঠানো হয়েছে।

উল্লেখ‌্য, চলতি বছরের ১৫ জানুয়ারি রাজাপুর প্রেসক্লাবে সংবাদ সম্মেলনে আবুল হোসেন তার লিখিত বক্তব‌্যে জানিয়েছিলেন, স্ত্রী-সন্তানের ভবিষ্যতের কথা ভেবে ডাকাতি ছেড়ে দিয়ে স্বাভাবিক জীবনে ফিরবেন। এবং কৃষিকাজ করে জীবিকা নির্বাহ করতে চান।



সাতদিনের সেরা