kalerkantho

মঙ্গলবার । ৬ আশ্বিন ১৪২৮। ২১ সেপ্টেম্বর ২০২১। ১৩ সফর ১৪৪৩

গাইবান্ধায় আম কেনা নিয়ে দ্বন্দ্বে ছাত্রলীগ নেতা খুন, আটক ৪

গাইবান্ধা প্রতিনিধি   

৫ আগস্ট, ২০২১ ১৭:৪২ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



গাইবান্ধায় আম কেনা নিয়ে দ্বন্দ্বে ছাত্রলীগ নেতা খুন, আটক ৪

গাইবান্ধায় দুর্বৃত্তদের হামলায় বুধবার রাতে মঞ্জুরুল হাসান লিখন (৩৮) নামে ছাত্রলীগের সাবেক এক নেতা নিহত হয়েছেন। লিখন গাইবান্ধা সরকারি কলেজ ছাত্রলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক ও শহরের পশ্চিমপাড়ার মাহাবুবুর রহমানের ছেলে।

এ ঘটনায় জিজ্ঞাসাবাদের জন্য ডেভিড কম্পানির পাড়ার বাদশা মিয়ার ছেলে রকসি মিয়া (২১), মিরাজ মিয়ার ছেলে আকাশ (১৯), রুহুল আমিনের ছেলে রিফাত (১৮) ও কনু মিয়ার ছেলে সাফি মিয়াকে (২০) আটক করা হয়েছে।

প্রত্যক্ষদর্শী সূত্রে জানা গেছে, বুধবার বিকেলে মঞ্জুরুল হাসান লিখন শরিফের দোকানে আম কিনতে যান। এ সময় আমের দাম নিয়ে তার সঙ্গে বাগবিতণ্ডা হয় লিখনের। পরে তাদের মধ্যে হাতাহাতির ঘটনা ঘটে। স্থানীয় লোকজনের মধ্যস্থতায় উভয় পক্ষের মধ্যে সমঝোতা হয়। রাতে লিখন জেলা বিএনপি অফিসের পাশে চায়ের দোকানে চা পান করছিলেন। এ সময় শরীফসহ তার সহযোগী কয়েকজন লিখনের ওপর আকস্মিক হামলা চালায় এবং তাকে বেধড়ক মারপিট করে গুরুতর আহত অবস্থায় রাস্তায় ফেলে চলে যায়। পরে স্থানীয় লোকজন লিখনকে উদ্ধার করে জেলা সদর হাসপাতালে নিয়ে যায়। সেখানে তার অবস্থার অবনতি হলে তাকে রংপুর মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে নেওয়ার পথে তার মৃত্যু হয়।

গাইবান্ধা সদর থানার ওসি মো. মাসুদার রহমান মাসুদ জানান, নিহত লিখনের লাশ ময়নাতদন্তের জন্য গাইবান্ধা জেনারেল হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। এ ঘটনায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করা হয়েছে।



সাতদিনের সেরা