kalerkantho

রবিবার । ৪ আশ্বিন ১৪২৮। ১৯ সেপ্টেম্বর ২০২১। ১১ সফর ১৪৪৩

জমি লিখে না দেওয়ায় বাবা-মাকে বের করে দিল গ্রাম পুলিশ ছেলে

আঞ্চলিক প্রতিনিধি, ময়মনসিংহ   

১ আগস্ট, ২০২১ ১৮:২৩ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



জমি লিখে না দেওয়ায় বাবা-মাকে বের করে দিল গ্রাম পুলিশ ছেলে

বার বার তাগাদার পরেও নিজের নামে জমি লিখে না দেওয়ায় বৃদ্ধ বাবা-মাকে গভীর রাতে ঘর থেকে বের করে তালা লাগিয়ে দেয় গ্রাম পুলিশ ছেলে। খোলা আকাশের নিচে অবস্থানকালে এলাকার লোকজন ৯৯৯ এ কল দিলে ঘটনা স্থলে আসে পুলিশ। পরে ওই বৃদ্ধ-বৃদ্ধাকে ঘরে প্রবেশ করা ও গ্রাম পুলিশ ছেলেকে আটক করে থানায় নিয়ে যায় তারা। এ ঘটনায় ওই গ্রাম পুলিশকে আজ রবিবার গাঁজা ব্যবসায় জড়িত থাকার অভিযোগে মামলা দিয়ে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠানো হয়েছে। ময়মনসিংহের নান্দাইল উপজেলার সিংরুইল ইউনিয়নের আগপাড়া গ্রামে এ ঘটনা ঘটেছে।

স্থানীয় সুত্র ও পুলিশ জানায়, ওই গ্রাম পুলিশ গ্রামের হামিদ আলীর ছেলে মো. জয়নাল আবেদিন (৩২)। তিনি ওই ইউনিয়নের চৌকিদার। ঘটনার বিবরনে জানা যায়, বৃদ্ধ আব্দুল হামিদের তিন ছেলে। দুই ছেলে ঢাকায় থেকে একজন নিরাপত্তা প্রহরী ও অন্যজন একটি বেসরকারি সংস্থায় চাকুরি করেন। এর মধ্যে নিজে বেকার থাকা অবস্থায় সংসারের কর্তৃত্ব ছিল ঢাকায় থাকা ছেলেদের ওপর। তিনিই সংসারের সকল কিছু দেকবাল করতেন। এ অবস্থায় জয়নালের গ্রাম পুলিশের চাকুরি হলে বেপরোয়া হয়ে ওঠে সে। সংসারের কর্তৃত্ব ছাড়াও জমিজমার বেশীর ভাগ তাঁর নামে লিখে দেওয়ার জন্য বাবা-মায়ের ওপর চাপ প্রয়োগ করে আসছিল। 

কিন্তু  সময় মতো অন্য সন্তানদের সঙ্গে সমহারে বন্টন করে লিখে দেওয়ার কথা বললেই চলে বাবা-মায়ের ওপর মানসিক নির্যাতন। জয়নালের মা সমেলা খাতুন জানান,গতকাল শনিবার রাতে স্বামীকে নিয়ে ঘুমিয়ে ছিলেন তিনি। এ সময় ছেলে জয়নাল ঘরে প্রবেশ করে অকথ্য ভাষায় গালাগাল করে আগামি দুই এক দিনের মধ্যে নিজের প্রাপ্য জমি লিখে দেওয়ার জন্য বলে। অন্যথায় যে কোনো ঘটনা ঘটানোর হুমকী দেয়। এতে প্রতিবাদ করলে জয়নাল তাঁকে ও স্বামীকে ধাক্কাধাক্কি করে ঘর থেকে বের করে দিয়ে তালা লাগিয়ে দেয়। পরে বেশ কয়েক ঘন্টা খোলা আকাশের থাকলেও পুলিশ এসে উদ্ধার করে তালা ভেঙ্গে ঘরে প্রবেশ করায়। অপর দিকে জয়নালকে আটক করে থানায় নিয়ে যায়।

নান্দাইল থানার উপপরিদর্শক মো. মনিরুজ্জামান জানান,৯৯৯ এ ফোন পেয়ে থানার ওসির নির্দেশে জয়নালকে আটক করা হয়। পরে তদন্তে জানা যায় সে মাদক ব্যবসার সঙ্গে জড়িত। এ অবস্থায় তার দেহ তল্লাসিকালে দেড়শ গ্রাম গাঁজা পাওয়ায় তার বিরুদ্ধে মাদক দ্রব্য নিয়ন্ত্রন আইনে মামলা দেওয়া হয়েছে।



সাতদিনের সেরা