kalerkantho

সোমবার  । ১২ আশ্বিন ১৪২৮। ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২১। ১৯ সফর ১৪৪৩

বিশেষ অঙ্গে লাথি, প্রাণ গেল যুবকের

শরণখোলা (বাগেরহাট) প্রতিনিধি   

৩০ জুলাই, ২০২১ ১৫:৫৮ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



বিশেষ অঙ্গে লাথি, প্রাণ গেল যুবকের

প্রতীকী ছবি।

প্রতিপক্ষের লাথির আঘাতে মুনসুর হাওলাদার (৩৫) নামে এক দিনমজুর যুবকের মৃত্যু হয়েছে। খুলনা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে (খুমেক) চিকিৎসাধীন অবস্থায় বৃহস্পতিবার বিকেলে তার মৃত্যু হয়। নিহত যুবক বাগেরহাটের শরণখোলা উপজেলার খোন্তাকাটা ইউনিয়নের মধ্য খোন্তাকাটা গ্রামের ছামাদ হাওলাদারের ছেলে। 

মঙ্গলবার (২৭ জুলাই) দুপুরে তুচ্ছ বিষয় নিয়ে কথা কাটাকটির এক পর্যায়ে প্রতিবেশী শামছু হাওলাদারের ছেলে সাইদুল হাওলাদার (৩৭) মুনসুরের স্পর্শকাতর স্থানে লাথি মারেন। এতে গুরুতর আহত হন ওই যুবক।

থানা সূত্রে জানা যায়, শুক্রবার (৩০ জুলাই) খুমেক হাসপাতালে লাশের ময়নাতদন্ত সম্পন্ন হয়েছে। এ ঘটনায় নিহতের স্ত্রী শিউলী বেগম বাদী হয়ে শরণখোলা থানায় হত্যা মামলা দায়ের করবেন বলে জানিয়েছে পুলিশ।

স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, ঢাকার বাসিন্দা চাচা আলমগীরের বাগানবাড়ি দেখাশোনা করেন মুনসুর। ঘটনার দিন দুপুর ১২টার দিকে ওই বাগানের একটি নারকেল গাছ থেকে জোরপূর্ব কয়েকটি ডাব পাড়েন সাইদুল। এ নিয়ে কথা কাটাকাটির একপর্যায়ে সাইদুল স্পর্শকাতর স্থানে লাথি দিলে মুনসুর অজ্ঞান হয়ে পড়েন। তাকে দ্রুত শরণখোলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে প্রাথমিক চিকিৎসা দেওয়া হয়। পরে অবস্থার অবনতি হলে উন্নত চিকিৎসার জন্য খুলনা মেডিক্যালে পাঠানো হয় তাকে।

শরণখোলা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. সাইদুর রহমান জানান, এ ব্যাপারে হত্যা মামলার প্রস্তুতি চলছে। ঘাতক সাইদুলকে গ্রেপ্তারের চেষ্টা করছে পুলিশ।



সাতদিনের সেরা