kalerkantho

রবিবার । ৪ আশ্বিন ১৪২৮। ১৯ সেপ্টেম্বর ২০২১। ১১ সফর ১৪৪৩

ধর্ষণের পর কিশোরীকে নিজ বাড়িতে নিয়ে যান অভিযুক্ত!

হবিগঞ্জ প্রতিনিধি   

২৯ জুলাই, ২০২১ ১৯:৫৩ | পড়া যাবে ১ মিনিটে



ধর্ষণের পর কিশোরীকে নিজ বাড়িতে নিয়ে যান অভিযুক্ত!

প্রতীকী ছবি।

হবিগঞ্জের নবীগঞ্জ উপজেলায় এক কিশোরীকে গণধর্ষণের অভিযোগে মাহমুদ আলী (৩০) নামে এক যুবককে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। বৃহস্পতিবার (২৯ জুলাই) ভোরে তাকে গ্রেপ্তারের পর দুপুরে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে প্রেরণ করা হয়েছে। মাহমুদ আলী বানিয়াচং উপজেলার কদুপুর গ্রামের সঞ্জব আলীর ছেলে।

পুলিশ ও মামলার বিবরণে জানা যায়, ২০ জুলাই (মঙ্গলবার) সন্ধ্যায় নবীগঞ্জ উপজেলার কালিয়ারভাঙ্গা ইউনিয়নের এক কিশোরীকে (১৪) বিভিন্ন প্রলোভন দিয়ে মাহমুদ ও তার সহযোগীরা প্রথমে সিএনজি অটোরিকশাতে ও পরে একটি আবাসিক হোটেলে রেখে ধর্ষণ করে। পরবর্তীতে অভিযুক্ত মাহমুদ তার নিজের বাড়িতে ওই কিশোরীকে নিয়ে আসলে তার স্বজনরা কিশোরীকে বাবার বাড়ি পাঠিয়ে দেয়। পরে ওই কিশোরী ধর্ষণের বিষয়টি তার পরিবারকে জানালে ২৫ জুলাই কিশোরীকে হবিগঞ্জ আধুনিক সদর আধুনিক হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

আজ বৃহস্পতিবার (২৯ জুলাই) এ ঘটনায় ওই কিশোরীর বাবা বাদী হয়ে নবীগঞ্জ থানায় মামলা দায়ের করেন। পরে পুলিশ অভিযান চালিয়ে কালিয়ারভাঙ্গা ইউনিয়নের রসুলগঞ্জ বাজার থেকে মাহমুদ আলীকে গ্রেপ্তার করে।

নবীগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. ডালিম আহমেদ গ্রেপ্তারের সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।



সাতদিনের সেরা