kalerkantho

বুধবার । ১৩ শ্রাবণ ১৪২৮। ২৮ জুলাই ২০২১। ১৭ জিলহজ ১৪৪২

নবীনগরে কোরবানির পশুহাটে মানুষের উপচে পড়া ভিড়

নবীনগর (ব্রাহ্মণবাড়িয়া) প্রতিনিধি   

১৭ জুলাই, ২০২১ ১৯:৫৮ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



নবীনগরে কোরবানির পশুহাটে মানুষের উপচে পড়া ভিড়

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার নবীনগরে ঈদুল আজহাকে কেন্দ্র করে বসেছে বেশ কয়েকটি পশুহাট। আজ শনিবার উপজেলার শ্রীঘরে পশ্চিম অঞ্চলের সর্ব বৃহৎ হাট ও জিনদপুরে দক্ষিণ অঞ্চলের জনপ্রিয় পশুর হাট বসেছে। শ্রীঘর বাজারে মানুষের উপচে পড়ে ভিড় দেখা গেছে। হাটে আসা লোকজনের অধিকাংশই দর্শনার্থী। সাধারণ মানুষের মাঝে স্বাস্থ্যবিধি না মানার প্রবণতা দেখা গেছে।  

বাজারগুলো ঘুরে জানা যায়, করোনা সংক্রণের প্রকোপ বেড়ে যাওয়ায় অনেকেই, বাড়ি থেকে গরু কিনেছেন। তাই তারা আজ গরু কিনতে নয়, দেখতে এসেছেন। এছাড়া হাজার হাজার মানুষের ভিড়ের কারণে প্রচন্ড গরমে মানুষের নাভিশ্বাস উঠে। এতে করে বয়স্কদেরকে বার বার মাস্ক খুলে ফেলতে দেখা গেছে।

হাটে আসা কামরুল ইসলাম বলেন, ‘করোনা মহামারির কারণে বাজার জমবে কি না; এই সন্দেহে আমি গৃহস্থের বাড়ি থেকে গরু কিনে ফেলেছি। আজ বাজারে গরু দেখতে এসেছি।’ 

বাজারে গরু কিনতে আসা মাঈন উদ্দিন মিয়া বলেন, ‘বাজারে গরুর তুলনায় মহিষের দাম একটু বেশি। মানুষের উপস্তিতি খুব বেশি, তাই বিক্রেতারা দাম বেশি হাঁকছেন।’

বিক্রেতা শাহীন মিয়া বলেন, ‘বাজারে বড় গরুরগুলোর ক্রেতা একটু কম, ছোট গরুগুলো বেশি বিক্রি হচ্ছে। আজ আমি দুইটি গরু বিক্রি করেছি। ভালো দাম পেয়েছি।’ 

ইজারাদারগণ বলেন, বাজারে অতিরিক্ত মানুষের চাপের কারণে আমরা পুরোপুরি স্বাস্থ্যবিধি অনুসরণ করতে পারছি না। তবে মাইকিং করে লোকজনকে সচেতন করার চেষ্টা করছি।

নবীনগর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আমিনুর রশিদ বলেন, স্বাস্থ্যবিধি মানার বিষয়ে আমরা আপ্রাণ চেষ্টা করছি। উপজেলার প্রত্যেকটি পশুহাটে পুলিশ মোতায়েন রয়েছে, তারা লোকজনকে মাস্ক না পড়ে বাজারে প্রবেশ করতে দিচ্ছে না।



সাতদিনের সেরা