kalerkantho

রবিবার । ১৭ শ্রাবণ ১৪২৮। ১ আগস্ট ২০২১। ২১ জিলহজ ১৪৪২

যৌথ বাহিনীর অভিযান

লকডাউন অমান্য করায় বড়লেখায় ৫০ হাজার টাকা জরিমানা

বড়লেখা (প্রতিনিধি) প্রতিনিধি   

২ জুলাই, ২০২১ ২৩:৩১ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



লকডাউন অমান্য করায় বড়লেখায় ৫০ হাজার টাকা জরিমানা

মৌলভীবাজারের বড়লেখায় লকডাউনের দ্বিতীয় দিনেও কঠোর অবস্থানে ছিল প্রশাসন। এদিন মাস্ক না পরা, অকারণে বের হওয়া ও নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে ব্যবসা প্রতিষ্ঠান খোলা রাখায় ২৫ ব্যক্তি ও প্রতিষ্ঠানকে ৫০ হাজার ৭০০ টাকা জরিমানা করা হয়েছে।  

লকডাউন কার্যকরে শুক্রবার (২ জুলাই) সকাল থেকে সন্ধ্যা পর্যন্ত দুই দফায় পৌর শহর ও উপজেলার বিভিন্ন এলাকায় ভ্রাম্যমাণ আদালতের পৃথক অভিযানে এ জরিমানা করা হয়।

ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট খন্দকার মুদাচ্ছির বিন আলী, সহকারী কমিশনার (ভূমি) ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট নূসরাত লায়লা নীরা। ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনায় সহযোগিতা করছে পুলিশ, সেনাবাহিনী, বিজিবি ও আনসার সদস্যরা।

বড়লেখা উপজেলা প্রশাসন সূত্রে জানা গেছে, করোনাভাইরাসের সংক্রমণ প্রতিরোধে সরকারি ঘোষিত কঠোর লকডাউন বাস্তবায়নে বড়লেখা উপজেলায় উপজেলা প্রশাসন, পুলিশ, সেনাবাহিনী ও বিজিবি যৌথভাবে মাঠে কাজ করছে। শুক্রবার সকাল ১১টা থেকে বিকেল সাড়ে ৫টা পর্যন্ত দুই দফায় উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট খন্দকার মুদাচ্ছির বিন আলীর নেতৃত্বে পুলিশ ও সেনাবাহিনী যৌথভাবে উপজেলার কাঠালতলী, রতুলী, দক্ষিণভাগ বাজার, বড়লেখা পৌর শহর, উত্তর চৌমুহনী, গোয়ালটাবাজার, দাসেরবাজার, চান্দগ্রাম বাজার এলাকা পর্যবেক্ষণ করে। এ সময় স্বাস্থ্যবিধি অমান্য করায় ১৫ ব্যক্তি ও প্রতিষ্ঠানকে ৩৬ হাজার ২০০ টাকা জরিমানা করা হয়।

এসময় সেনাবাহিনীর সিলেট সেনানিবাসের ৫০ ফিল্ড রেজিমেন্ট আর্টিলারির ক্যাপ্টেন মো. মাহাদী হাসান, বড়লেখা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. জাহাঙ্গীর হোসেন সরদার, বড়লেখা থানার পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) রতন দেবনাথ, থানার সেকেন্ড অফিসার (এসআই) সুব্রত কুমার দাস, উপ-পরিদর্শক (এসআই) হযরত আলী, সহকারী উপ-পরিদর্শক (এএসআই) সাইফুল আলম প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

অপরিদেকে বিকেলে বড়লেখার সহকারী কমিশনার (ভূমি) ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট নূসরাত লায়লা নীরার নেতৃত্বে বড়লেখা পৌর শহর, কাঠালতলী, দক্ষিণভাগসহ বিভিন্ন বাজারে ভ্রাম্যমাণ আদালতের অভিযান হয়। এসময় নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে প্রতিষ্ঠান খোলা রাখার অপরাধে ১০টি প্রতিষ্ঠান মালিককে ১৪ হাজার ৫০০ টাকা জরিমানা করা হয়।

বড়লেখা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট খন্দকার মুদাচ্ছির বিন আলী জানান, সরকার ঘোষিত বিধিনিষেধ পালনে নিরবিচ্ছিন্ন টহল, ক্যাম্পেইন ও ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করা হচ্ছে। লকডাউন যথাযথভাবে কার্যকরে উপজেলা প্রশাসন, পুলিশ ও সেনাবাহিনী সম্মিলিতভাবে মাঠে কাজ করছে। 

শুক্রবার সকাল থেকে সন্ধ্যা পর্যন্ত আমরা বিভিন্ন এলাকা পর্যবেক্ষণ করেছি। এসময় ভ্রাম্যমাণ আদালতের পৃথক অভিযানে ২৫টি মামলায় ৫০ হাজার ৭০০ টাকা জরিমানা করা হয়েছে। লকডাউন কার্যকরে আমাদের অভিযান অব্যাহত থাকবে। কেউ যদি সরকারি বিধিনিষেধ অমান্য করে, তবে তার বিরুদ্ধে বিধি অনুযায়ী ব্যবস্থা নেওয়া হবে।



সাতদিনের সেরা