kalerkantho

রবিবার । ১০ শ্রাবণ ১৪২৮। ২৫ জুলাই ২০২১। ১৪ জিলহজ ১৪৪২

স্ত্রীকে হত্যা করে ৭ মাস আত্মগোপনে, অবশেষে ধরা

আদমদীঘি (বগুড়া) প্রতিনিধি   

১৫ জুন, ২০২১ ২১:২৫ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



স্ত্রীকে হত্যা করে ৭ মাস আত্মগোপনে, অবশেষে ধরা

বগুড়ার আদমদীঘির সান্তাহারে ফাইমা বেগম নামের এক গৃহবধূকে শ্বাসরোধে হত্যার অভিযোগে সাত মাস ধরে আত্মগোপনে থাকা স্বামী সাইফুল ইসলামকে (৩৮) গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। গ্রেপ্তারকৃত সাইফুল উপজেলার সান্তাহার ইউনিয়নের সান্দিড়া ব্যাপারীপাড়ার আরমান আলীর ছেলে। গ্রেপ্তারের পর মঙ্গলবার সন্ধ্যায় তাকে আদমদীঘি থানায় আনা হয়। এর আগে, সোমবার রাতে ঢাকার নিউ গুলশান এলাকায় একটি হোটেল থেকে তাকে গ্রেপ্তার করা হয়।

পুলিশ জানায়, টাকার জন্য বাগবিতণ্ডার একপর্যায়ে স্ত্রীকে শ্বাসরোধে হত্যা করে লাশ কম্বল দিয়ে ঢেকে রেখে পালিয়ে যায় সাইফুল ইসলাম। কয়েক দিন পর প্রতিবেশীরা দুর্গন্ধ পেয়ে নিহতের বড় বোন রোজিনা বেগমকে বিষয়টি জানায়। তারা তালা ভেঙে ফাইমার লাশ দেখতে পেয়ে পুলিশকে খবর দিলে তারা লাশ উদ্ধার করে। এর পর থেকে সাইফুল আত্মগোপনে ছিলেন। গোপন সংবাদের ভিত্তিতে সোমবার রাতে ঢাকার গুলশান এলাকার নিউ গুলশান প্লাজায় একটি হোটেল থেকে তাকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ।

সান্তাহার পুলিশ ফাঁড়ির উপপরিদর্শক আব্দুল ওয়াদুদ বলেন, আত্মগোপনে থাকা সাইফুলকে সাত মাস পর ঢাকা থেকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। আজ মঙ্গলবার সন্ধ্যায় তাকে আদমদীঘি থানায় হাজির করা হয়েছে।



সাতদিনের সেরা