kalerkantho

সোমবার । ৩১ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৮। ১৪ জুন ২০২১। ২ জিলকদ ১৪৪২

রায়পুরে নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে জমি দখলের অভিযোগ

লক্ষ্মীপুর প্রতিনিধি    

২৫ মে, ২০২১ ১৫:২৭ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



রায়পুরে নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে জমি দখলের অভিযোগ

লক্ষ্মীপুরের রায়পুর উপজেলার বামনীর বাংলাবাজার এলাকায় বেনু লাল দাসের ৪০ শতাংশ জমি দখল করার অভিযোগ উঠেছে। ওই জমির একাংশে বসতঘর নির্মাণ করা হয়। আদালতের নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে একই এলাকার প্রভাবশালী জাহাঙ্গীর আলম ও তার অনুসারীরা জমিটি দখল করেন বলে অভিযোগ ওঠে। এ নিয়ে ইউপি কার্যালয় ও থানা পুলিশের কাছে অভিযোগ করেও কোনো সুফল মেলেনি। আজ মঙ্গলবার (২৫ মে) দুপুরে বেনু লাল সাংবাদিকদের কাছে দখলকাণ্ডের অভিযোগ করে প্রশাসনের দ্রুত কার্যকর হস্তক্ষেপ চেয়েছেন। 

ভুক্তভোগী পরিবারের ভাষ্যমতে, কয়েক বছর ধরে বেনু লালের জমি স্থানীয় জাহাঙ্গীর আলম ও তার সহযোগীদের কুনজরে পড়ে। জাহাঙ্গীর ঠুনকো মালিকানা দাবি করে জমি দখলের ছক আঁকেন। এতে জাহাঙ্গীরের বিরুদ্ধে গেল বছরের ২৩ নভেম্বর বেনু লাল জেলা আদালতে মামলা করেন। আদালত বিষয়টি আমলে নিয়ে থানা পুলিশকে স্থিতিশীল অবস্থা বজায় রাখতে ব্যবস্থা ও উপজেলা সহকারী কমিশনারকে (ভূমি) তদন্ত করে প্রতিবেদন দাখিলের নির্দেশ দেয়। এরপর রায়পুর থানার এএসআই জাকির হোসেন মৃধা ঘটনাস্থলে গিয়ে স্থিতিশীল অবস্থায় উভয়পক্ষকে শান্ত থাকার জন্য বলেন।

বেনু লাল দাস জানান, আদালতের নির্দেশ অমান্য করে জাহাঙ্গীর ও তার অনুসারীরা আমার মালিকানাধীন ৪০ শতাংশ দখল করেছে। তহশিলদারের প্রতিবেদনেও বলা হয়েছে, জমিটি আমার। এছাড়া আমার দলিলসহ সব কাগজপত্র রয়েছে। তারা জমির কিছু গাছ কেটে ও ফলফলাদি নিয়ে গেছে। আমি প্রশাসনের দ্রুত কার্যকরী হস্তক্ষেপ চাচ্ছি।

অভিযুক্ত জাহাঙ্গীর আলম বলেন, বাবা-মার ওয়ারিশসহ সোয়া ১৭ শতাংশ জমিতে বসতঘর করে আমি বসবাস করছি। আমি কারো জমি দখল করিনি। বরং উদ্দেশ্যমূলক মামলা দিয়ে আমাকে হয়রানি করা হচ্ছে। আদালতের মাধ্যমেই তা মোকাবেলা করবো। 

এ ব্যাপারে রায়পুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবদুল জলিল বলেন, দু'পক্ষের মধ্যে ৪০ শতাংশ জমির বিরোধ নিয়ে আদালতে মামলা চলছে। শান্তি-শৃঙ্খলা বজায় রাখতে উভয়পক্ষকে নির্দেশ দেয়া হয়েছে। নতুন করে জমি দখলের কথা বেনু লাল জানিয়েছেন। ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানো হয়েছে।



সাতদিনের সেরা