kalerkantho

শনিবার । ৫ আষাঢ় ১৪২৮। ১৯ জুন ২০২১। ৭ জিলকদ ১৪৪২

পাওনা টাকা নিয়ে বাকবিতণ্ডা, স্কুলশিক্ষককে পিটিয়ে হত্যা!

নোয়াখালী প্রতিনিধি   

১৭ মে, ২০২১ ১৬:২৬ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



পাওনা টাকা নিয়ে বাকবিতণ্ডা, স্কুলশিক্ষককে পিটিয়ে হত্যা!

নোয়াখালীর দ্বীপ উপজেলা হাতিয়াতে পাওনা টাকা নিয়ে বাকবিণ্ডার জের ধরে এক স্কুলশিক্ষককে পিটিয়ে হত্যার অভিযোগে পাওয়া গেছে। এ ঘটনায় পুলিশ এক যুবককে আটক করেছে। নিহত কাজল কৃষ্ণ দাস (৫৫) উপজেলার সুখচর ইউনিয়নের ৭ নম্বর ওয়ার্ডের চর আমানুল্লা গ্রামের বসন্ত কুমার দাসের ছেলে এবং স্থানীয় ইন্দুরসরি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক ছিলেন। সোমবার ভোর রাতে হাতিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসাধীন অবস্থায় হামলার শিকার ওই শিক্ষকের মৃত্যু হয়।

এর আগে রবিবার রাতে খবর পেয়ে পুলিশ তাৎক্ষণিক অভিযুক্ত যুবক শান্ত মজুমদারকে (২০) আটক করে। তিনি উপজেলার সুখচর ইউনিয়নের চর আমানুল্লা গ্রামের খোকন চন্দ্র মজুমদারের ছেলে। স্থানীয়রা জানান, রবিবার বিকেলের দিকে পাওনা টাকা নিয়ে একই এলাকার শান্ত মজুমদারের (৪০) সঙ্গে কাজলের কথা কাটাকাটি হয়। এক পর্যায়ে শান্ত উত্তেজিত হয়ে কাজলকে পিটিয়ে আহত করেন। পরে পরিবারের সদস্যরা তাঁকে বাড়িতে রেখে চিকিৎসা দেন। রাতে তাঁর অবস্থার অবনতি হলে তাঁকে হাতিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় ভোর ৪টার দিকে তাঁর মৃত্যু হয়।

হাতিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবুল খায়ের জানান, হাসপাতালে শিক্ষকের মৃত্যুর খবর পেয়ে পুলিশ নিহতের সুরতহাল রিপোর্ট তৈরি করেছে। ময়নাতদন্তের রিপোর্ট পেলে এ বিষয়ে আরো বিস্তারিত জানা যাবে। এর আগে অভিযুক্ত শান্তকে আটক করে পুলিশ। পরবর্তীতে লিখিত অভিযোগের ভিত্তিতে আইনগত পদক্ষেপ নেওয়া হবে।



সাতদিনের সেরা