kalerkantho

বুধবার । ৯ আষাঢ় ১৪২৮। ২৩ জুন ২০২১। ১১ জিলকদ ১৪৪২

বিয়ের ৬ মাস পর স্ত্রীর সঙ্গে বিচ্ছেদে নেশাগ্রস্ত, অতঃপর আত্মহনন

ইন্দুরকানী (পিরোজপুর) প্রতিনিধি    

১৬ মে, ২০২১ ০৯:০৭ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



বিয়ের ৬ মাস পর স্ত্রীর সঙ্গে বিচ্ছেদে নেশাগ্রস্ত, অতঃপর আত্মহনন

প্রতীকী ছবি

বিয়ের ৬ মাস পর থেকে স্ত্রীর সঙ্গে সম্পর্ক ছিল না হৃদয়ের। একপর্যায়ে নেশাগ্রস্ত হয়ে পড়েন ২২ বছরের ওই  যুবক। আজ রবিবার (১৬ মে) সকালে ঘরের আঁড়ার সঙ্গে তাঁর ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করে পুলিশ।

ঘটনাটি ঘটেছে গতকাল শনিবার (১৫ মে) সন্ধ্যায় পিরোজপুরের ইন্দুরকানীউপজেলার পাড়েরহাট  ইউনিয়নের হোগলাবুনিয়া গ্রামে।

হৃদয়ের মা ও ছোট ভাই ঘরে না থাকার সুযোগে ঘরের দরজা আটকে পেছনের বারান্দার আঁড়ার সঙ্গে গলায় ফাঁস দিয়ে হৃদয় আত্মহত্যা করেছেন বলে মনে করছে পুলিশ ও স্থানীয়রা।

হৃদয় হোগলাবুনিয়া গ্রামের সৌদি প্রবাসী জামাল হাওলাদারের ছেলে।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, শনিবার দুই ছেলেকে বাড়িতে রেখে হৃদয়ের নানিকে ডাক্তার দেখানোর জন্য পিরোজপুর সদর হাসপাতালে নিয়ে যান হৃদয়ের মা। এদিকে,বড় ভাই হৃদয়কে বাসায় রেখে বিকেলে মাঠে ফুটবল খেলতে যান ছোট ভাই। সন্ধ্যায় মাঠ থেকে বাড়ি ফিরে ঘরের চারদিকের দরজা বন্ধ দেখতে পান। কোনো সাড়াশব্দ না পেয়ে বাড়ির আশপাশের লোকের সহায়তায় দরজা ভেঙে ঘরের ভেতরে প্রবেশ করেন ছোট ভাই। এসময় হৃদয়কে ঝুলন্ত অবস্থায় দেখা যায়। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে লাশ উদ্ধার করে থানায় নিয়ে যায়।

হৃদয় দুই বছর আগে মঠবাড়ীয়া এলাকায় বিয়ে করেন। বিয়ের ৬ মাস পর থেকে স্ত্রীর সঙ্গে সম্পর্ক না থাকায়  নেশাগ্রস্ত হয়ে পড়েন।

ইন্দুরকানী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. হুমায়ুন কবির ঘটনা সত্যতা নিশ্চিত করেছেন। তিনি জানান, লাশ উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসা হয়েছে। ময়নাতদন্ত প্রতিবেদন পাওয়ার পর তদন্ত সাপেক্ষে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।



সাতদিনের সেরা