kalerkantho

শুক্রবার । ৪ আষাঢ় ১৪২৮। ১৮ জুন ২০২১। ৬ জিলকদ ১৪৪২

বাড়ির ডেকোরেশন দেখানোর নাম করে নিয়ে গিয়ে ধর্ষণ!

যশোর প্রতিনিধি   

৬ মে, ২০২১ ১৯:৩৫ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



বাড়ির ডেকোরেশন দেখানোর নাম করে নিয়ে গিয়ে ধর্ষণ!

যশোরে ষষ্ঠ শ্রেণির এক স্কুলছাত্রীকে ধর্ষণের অভিযোগে আজ বৃহস্পতিবার শহরের খোলাডাঙ্গা থেকে দুজনকে গ্রেপ্তার করেছে কোতোয়ালি পুলিশ। ঘরের ডেকোরেশন দেখানোর নাম করে নিয়ে গিয়ে ওই কিশোরীকে ধর্ষণ করা হয়েছে বলে অভিযোগ। গ্রেপ্তারকৃতরা হলো- খোলাডাঙ্গার নূর আলীর ছেলে ইমামুল হক ছোট (২২) ও মৃত ওয়াজেদ আলীর ছেলে লুৎফর রহমান (৬০)।

নির্যাতিত কিশোরীর মা বুধবার কোতোয়ালি থানায় ধর্ষণের অভিযোগে মামলা করেন। মামলায় তিনি উল্লেখ করেন, তার মেয়ে স্থানীয় একটি স্কুলে ষষ্ঠ শ্রেণিতে পড়ে। গত ৪ মে সকাল সাড়ে ১১টার দিকে তার মেয়েকে ইমামুল বাড়ির পাশে লুৎফর রহমানের চারতলা বাড়ির ডেকোরেশন দেখাবে বলে ডেকে নিয়ে গিয়ে ধর্ষণ করে। এরপর বাড়ির মালিক লুৎফর রহমানও তাকে ধর্ষণ করে। 

কোতোয়ালি থানার ওসি মো. তাজুল ইসলাম বলেন, মামলা পাওয়ার পর অভিযান চালিয়ে আজ ভোরে ইমামুল ও লুৎফরকে গ্রেপ্তার করা হয়। এরপর তাদের আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠানো হয়েছে। এ ছাড়া নির্যাতিত কিশোরীর ডাক্তারি পরীক্ষা সম্পন্ন করতে যশোর জেনারেল হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

যশোর জেনারেল হাসপাতালের আবাসিক মেডিক্যাল অফিসার আরিফ আহম্মেদ বলেন, এক কিশোরীর নমুনা সংগ্রহ করা হয়েছে। সে ধর্ষণের শিকার কি না তা রিপোর্ট না আসা পর্যন্ত বলা সম্ভব নয়।



সাতদিনের সেরা