kalerkantho

মঙ্গলবার । ৮ আষাঢ় ১৪২৮। ২২ জুন ২০২১। ১০ জিলকদ ১৪৪২

নোয়াখালীতে সংঘবদ্ধ ধর্ষণের শিকার কিশোরী : প্রধান আসামি আটক

নিজস্ব প্রতিবেদক, নোয়াখালী   

২ মে, ২০২১ ০২:১৩ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



নোয়াখালীতে সংঘবদ্ধ ধর্ষণের শিকার কিশোরী : প্রধান আসামি আটক

প্রতীকী ছবি

নোয়াখালীর সোনানাইমুড়ী উপজেলায় এক রিকশাচালকের কিশোরী কন্যাকে (১১) সংঘবদ্ধ ধর্ষণের ঘটনায় প্রধান আসামি আবদুর রবকে আটক করেছে সোনাইমুড়ী থানার পুলিশ।

আটককৃত আবদুর রব (২৮) সোনাইমুড়ী উপজেলার বজরা ইউনিয়নের বাকের মিয়ার ছেলে। শনিবার (১ মে) সন্ধ্যায় তথ্য প্রযুক্তির সহায়তায় কুমিল্লা জেলার লাকসামে অভিযান চালিয়ে পুলিশ তাকে আটক করে।

সোনাইমুড়ী থানার ওসি মো. গিয়াস উদ্দিন এসব তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

স্থানীয়রা জানায়, সোনানাইমুড়ীর এক রিকশাচালকের মেয়ে গত বৃহস্পতিবার বিকাল ৫টায় একটি দোকানে মোবাইলের মিনিট কার্ড কিনতে যায়। দোকান থেকে ফেরার পথে একই গ্রামের বাকের মিয়ার বখাটে ছেলে আবদুর রব (২৩) তার গতিরোধ করে রাস্তায় দাঁড় করিয়ে রাখেন। পরে পশ্চিম বজরা গ্রামের বাচ্চু মিয়ার ছেলে রিপা (২৮) এসে তার মুখে গামছা পেঁচিয়ে স্কুলের পাশে ধানক্ষেতে নিয়ে যান। একই গ্রামের সেরু মিয়ার ছেলে সালাউদ্দিন (২৯) এসময় পাহারা দেন। এরপর তারা কিশোরীকে পালাক্রমে গণধর্ষণ করেন। পরে কিশোরী বাড়িতে এসে বিষয়টি পরিবারের সদস্যদেরকে জানায়। এ ঘটনায় বৃহস্পতিবার রাতে কিশোরীর মা বাদী হয়ে অভিযুক্ত তিনজনকে আসামি করে সোনাইমুড়ী থানায় মামলা করেন।

সোনাইমুড়ি থানার ওসি গিয়াস উদ্দিন জানান, সংঘবদ্ধ এই ধর্ষণের ঘটনার প্রধান আসামিকে ঘটনার দুই দিনের মধ্যে আটক করা হয়েছে। অপর পলাতক আসামিদের গ্রেপ্তারের চেষ্টা চালাচ্ছে পুলিশ। আটক আসামিকে আজ রবিবার বিচারিক আদালতে পাঠানো হবে।



সাতদিনের সেরা