kalerkantho

বুধবার । ২৯ বৈশাখ ১৪২৮। ১২ মে ২০২১। ২৯ রমজান ১৪৪২

গফরগাঁওয়ে ধান কাটা উৎসব

'আল্লায় তাগর মঙ্গল করবো'

গফরগাঁও (ময়মনসিংহ) প্রতিনিধি   

১ মে, ২০২১ ২০:০১ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



'আল্লায় তাগর মঙ্গল করবো'

ময়মনসিংহের গফরগাঁওয়ে ‘কৃষক বাঁচলে বাঁচবে দেশ, শেখ হাসিনার বাংলাদেশ’ স্লোগান নিয়ে উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান আশরাফ উদ্দিন বাদলের নেতৃত্বে বিপাকে পড়া কৃষকদের প্রায় তিন একর জমির ধান কেটে দিয়েছেন যুবলীগ নেতাকর্মীরা।

আজ শনিবার পৌর শহরের চরজন্মেজয় এলাকায় উপজেলা ও পৌর যুবলীগের উদ্যোগে এই ধান কাটা উৎসব হয়। অন্যান্যের মধ্যে ধান কাটায় অংশগ্রহণ করেন উপজেলা যুবলীগের আহ্বায়ক এম সালাহ উদ্দিন পলাশ, পৌর যুবলীগের আহ্বায়ক মাহমুদ হাসান সজিব, যুগ্ম আহ্বায়ক তাজমুন আহমেদসহ উপজেলা ও পৌর যুবলীগের তিন শতাধিক নেতাকর্মী।

জানা যায়, মহামারি করোনাকালীন পরিস্থিতিতে দেশের অন্যান্য এলাকার মতো গফরগাঁওয়ের কৃষকরাও অর্থনৈতিক ও শ্রমিক সংকটের কারণে ধান কাটা নিয়ে চরম বিপাকে পড়েছেন। এ অবস্থায় স্থানীয় সংসদ সদস্য ফাহমী গোলন্দাজ বাবেলের নির্দেশে উপজেলার বিভিন্ন স্থানে আওয়ামী লীগ ও সহযোগী সংগঠনের নেতাকর্মীরা বিপাকে পড়া কৃষকদের ধান কেটে মাড়াই করে অথবা বাড়িতে তুলে দিচ্ছেন। শনিবার দুপুরে পৌর শহরের চর জন্মেজয় এলাকায় কৃষক কাজল মিয়া, শামছুল ইসলাম ও জালাল মিয়ার প্রায় তিন একর জমির ধান উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান আশরাফ উদ্দিন বাদলের নেতৃত্বে উপজেলা ও পৌর যুবলীগের নেতাকর্মীরা কেটে মাড়াই করে দেন।

অন্যদিকে শনিবার উপজেলার বারবাড়িয়া ইউনিয়নে বিভিন্ন কৃষকের আরো ৭০ শতাংশ ও রসুলপুর ইউনিয়নে ৬২ শতাংশ জমির ধান কেটে দিয়েছেন স্থানীয় আওয়ামী লীগ ও সহযোগী সংগঠনের নেতাকর্মীরা।

কৃষক জালাল মিয়া বলেন, বিপইদের সময় নেতারা ধান কাইট্টা দিয়া বাঁচাইয়া দিছে। আল্লায় তাগর মঙ্গল করবো।

উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান আশরাফ উদ্দিন বাদল বলেন, গত বছরের মতো এবারো আমাদের নেতা সংসদ সদস্য ফাহমী গোলন্দাজ বাবেলের নির্দেশে মহামারি করোনাকালীন এই দুঃসময়ে অসহায় কৃষকের পাশে দাঁড়িয়েছি। উপজেলার বিভিন্ন এলাকায় আওয়ামী লীগ ও সহযোগী সংগঠনের নেতাকর্মীরা বিপাকে পড়া কৃষকের ধান কেটে বাড়ি পৌঁছে দিচ্ছেন। অনেক স্থানে মেশিনে ধান কেটে মাড়াই পর্যন্ত করে দিচ্ছেন। 



সাতদিনের সেরা