kalerkantho

শুক্রবার। ৩১ বৈশাখ ১৪২৮। ১৪ মে ২০২১। ০২ শাওয়াল ১৪৪২

বাবাকে মারধর, মায়ের হাত ভেঙে দিল পাষণ্ড ছেলে

রাজবাড়ী প্রতিনিধি   

১৮ এপ্রিল, ২০২১ ২০:১২ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



বাবাকে মারধর, মায়ের হাত ভেঙে দিল পাষণ্ড ছেলে

জমি লিখে না দেওয়ায় বাবা দোলোর হোসেনকে পিটিয়ে আহত করার পাশাপাশি মায়ের হাত ভেঙে দিয়েছে এক পাষণ্ড ছেলে। এ ঘটনায় রবিবার দুপুরে রাজবাড়ী থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছেন আহত বাবা। ঘটনাটি ঘটেছে রাজবাড়ী সদর উপজেলার আলীপুর ইউনিয়নের কালিচরণপুর গ্রামে। 

রবিবার দুপুরে রাজবাড়ী থানার গোলঘরে কথা হয় ৬৫ বছর বয়সী বৃদ্ধ কৃষক দোলোর হোসেন খানের সঙ্গে। তিনি জানান, তার ২ ছেলে ও তিন মেয়ে সন্তান রয়েছে। তিনি ও তার সহধর্মিনী জাহানারা বেগম (৫৫) ছোট ছেলে আলমাস খানকে নিয়ে বসবাস করেন। বড় ছেলে আক্তার হোসেন খান তার ১ ছেলে ও ২ মেয়েকে নিয়ে পূর্বে থেকেই ১১ শতাংশ জমি দখল করে অন্যত্র বসতবাড়ি নির্মাণ করে বসবাস করছে। যে জমিতে আক্তার বসবাস করে সে জমিও তার ( বাবা দেলোয়ারের)। তারপরও যে বাড়িতে তারা বসবাস করছেন ওই বাড়ির অংশ দাবি করছেন বড় ছেলে আক্তার। এ নিয়ে মাঝে মধ্যেই ঝগড়া হতো। বিষয়টির সুরাহার লক্ষে তিনি স্থানীয় ইউনিয়ন পরিষদে লিখিত অভিযোগও দায়ের করেন। তবে ইউনিয়ন পরিষদ থেকে সময় ও তারিখ নির্ধারণ করলেও সেখানে উপস্থিত হয় না, আক্তার খান।

তিনি বলেন, রবিবার সকাল সাড়ে ৮টার দিকে হঠাৎ করেই আক্তার খান ও তার ছেলে সজল খান আমাদের বাড়ি আসে এবং জমি লিখে দিতে পুনরায় ঝগড়া শুরু করে। তিনি জানান, একপর্যায়ে তারা প্রথমে আমাকে (বাবা দেলোয়ার হোসেন খানকে) লাঠি পেটা করে। তাকে ঠেকাতে আসলে লাঠি দিয়ে পিটিয়ে তার সহধর্মিনির ডান হাত ভেঙে দেয় এবং ডান চোখের নিচে জখম করে। ওই সময়ই পরিবারের অন্যান্য লোকজন তাদের উদ্ধার করে রাজবাড়ী সদর হাসপাতালে এনে চিকিৎসা সেবা প্রদান করেন। ছেলের হাত থেকে বাঁচতে হাসপাতাল থেকে তাই তারা থানায় অভিযোগ করতে যান।

রাজবাড়ী থানার ওসি স্বপন কুমার মজুমদার বলেন, অভিযোগের ভিত্তিতে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।



সাতদিনের সেরা